scorecardresearch
 

Corona 2.0: করোনার বাড়াবাড়িতে বন্ধ শাহরুখ-সলমনের শুটিং

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ফের একবার থমকে গেল মায়ানগরীর শুটিং ফ্লোর। প্রায় সমস্ত বড় স্টারদের বিগ বাজেট ছবির শুটিং বন্ধ হয়ে গেল। তালিকায় রয়েছে শাহরুখ খানের পাঠান, সলমন খানের টাইগার ৩, প্রভাসের আদিপুরুষ, আলিয়া ভাটের গাঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি, রণবীর কাপুরের ব্রহ্মাস্ত্র, অক্ষয়ের রামসেতু

শাহরুখ-সলমন শাহরুখ-সলমন
হাইলাইটস
  • প্রায় সমস্ত বড় স্টারদের বিগ বাজেট ছবির শুটিং বন্ধ হয়ে গেল
  • তালিকায় রয়েছে শাহরুখ খানের পাঠান, সলমন খানের টাইগার ৩, প্রভাসের আদিপুরুষ, আলিয়া ভাটের গাঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি, রণবীর কাপুরের ব্রহ্মাস্ত্র, অক্ষয়ের পৃথ্বীরাজ

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ফের একবার থমকে গেল মায়ানগরীর শুটিং ফ্লোর। প্রায় সমস্ত বড় স্টারদের বিগ বাজেট ছবির শুটিং বন্ধ হয়ে গেল। তালিকায় রয়েছে শাহরুখ খানের পাঠান, সলমন খানের টাইগার ৩, প্রভাসের আদিপুরুষ, আলিয়া ভাটের গাঙ্গুবাই কাথিয়াওয়াড়ি, রণবীর কাপুরের ব্রহ্মাস্ত্র, অক্ষয়ের রামসেতু। করোনা পরিস্থিতিতে মহারাষ্ট্রে ১৪৪ ধারা জারি করেছে উদ্ধব ঠাকরে সরকার। ফিরেছে জনতা কার্ফুর স্মৃতি। যার জেরেই ফের থমকে গেল বলিউড এবং হিন্দি ধারাবাহিকের শুটিং।

চলতি মাসের ১৩ এবং ১৪ তারিখ পাঠান ছবির শুটিং বন্ধ রাখা হয়েছিল। সূত্রের খবর, শুটিং ক্রু-র এক সদস্য করোনা আক্রান্ত হন। সদস্যের করোনা পজিটিভ হওয়ার পরেই ওই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। যদিও টিমের তরফ থেকে এ নিয়ে কোনও আনুষ্ঠানিক ঘোষণা করা হয়নি। অন্য দিকে ক্যাটরিনা কাইফ কোভিড আক্রান্ত হওয়ার পর টাইগার ৩-র শুটিং বন্ধ রাখতে হয়েছিল।

রামায়ণের কাহিনির উপর ভিত্তি করে তৈরি দক্ষিণী সুপারস্টার প্রভাসের আদাপুরুষের শুটিং বেশ জোর কদমে শুরু হয়েছিল। ছবিতে রামের চরিত্রে অভিনয় করছেন প্রভাস। সীতার চরিত্রে দেখা যাবে অভিনেত্রী কৃতি স্যানন-কে। লক্ষ্মণের চরিত্রে রয়েছেন সানি সিং। তবে নতুন পরিস্থিতিতে আপাতত শুটিং বন্ধ করতে হয়েছে। শুধুমাত্র বড় বাজেটের ছবিই নয়, এর সঙ্গে সার্বিক ভাবে সমস্ত শুটিংয়েই করোনা থাবা বসিয়েছে। ফের কবে পরিস্থিতি ঠিক হবে তার কোনও নিশ্চয়তা নেই।

প্রায় ৪ মাস টানা শুটিং বন্ধ থাকার পর ধীরে ধীরে ফের শুটিং শুরু হয় বলিউডে। একে একে বহু ছবির কাজও এগিয়ে গিয়েছে এ সময়। ঘোষণা করা হয়েছে ছবি মুক্তির দিনও। কিন্তু বলিউডে একের পর এক তারকারা কোভিড আক্রান্ত হওয়ায় পরিস্থিতি পাল্টে যায়। মহারাষ্ট্রের অবস্থা দেশের মধ্যে সবচেয়ে খারাপ। প্রতি দিন আক্রান্তের সংখ্যা লাফিয়ে বাড়ছে। তার মধ্যে শুটিং আপাতত বন্ধই রাখতে হল।