scorecardresearch
 

Maharashtra Political Crisis : উদ্ধবের কুর্সি যাচ্ছেই? শিন্ডে-শিবিরে ভিড়লেন আরও ৭ MLA

বুধবার রাত ৮টা নাগাদ গুয়াহাটির রেডিসন ব্লু হোটেলে পৌঁছান চার বিধায়ক। একনাথ শিন্ডে অন্যান্য বিদ্রোহী বিধায়কদের সঙ্গে এই হোটেলেই রয়েছেন। তথ্য অনুসারে, মহারাষ্ট্রের বিজেপি সভাপতি চন্দ্রকান্ত পাতিলের সঙ্গে চারজন বিধায়ক সুরাত থেকে গুয়াহাটির উদ্দেশ্যে রওনা দেন। শিবসেনার ওই বিধায়কদের মধ্যে গুলাবরাও পাতিল এবং যোগেশ কদম রয়েছেন। বাকি দুই বিধায়ক মঞ্জুলা গাবিত এবং চন্দ্রকান্ত পাতিল নির্দল।

একনাথ শিন্ডে ও উদ্ধব ঠাকরে (বামদিক থেকে) একনাথ শিন্ডে ও উদ্ধব ঠাকরে (বামদিক থেকে)
হাইলাইটস
  • রাজনৈতিক সংকট অব্যাহত মহারাষ্ট্রে
  • শক্তি বাড়ছে একনাথ শিবিরের?
  • মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবন থেকে মাতোশ্রীতে উদ্ধব

মহারাষ্ট্রে উদ্ধব সরকারের বিড়ম্বনা বাড়ছে বলেই মনে হচ্ছে। মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরের আবেদন সত্ত্বেও, শিবসেনা বিধায়কদের পালাবদলের প্রক্রিয়া জারি। আজ সকালে আরও তিনজন বিধায়ক গুয়াহাটিতে পৌঁছেছেন। এর আগে বুধবার, আরও চারজন বিধায়ক গুয়াহাটিতে শিন্ডের পক্ষে যোগ দেন।

বুধবার রাত ৮টা নাগাদ গুয়াহাটির রেডিসন ব্লু হোটেলে পৌঁছান চার বিধায়ক। একনাথ শিন্ডে অন্যান্য বিদ্রোহী বিধায়কদের সঙ্গে এই হোটেলেই রয়েছেন। তথ্য অনুসারে, মহারাষ্ট্রের বিজেপি সভাপতি চন্দ্রকান্ত পাতিলের সঙ্গে চারজন বিধায়ক সুরাত থেকে গুয়াহাটির উদ্দেশ্যে রওনা দেন। শিবসেনার ওই বিধায়কদের মধ্যে গুলাবরাও পাতিল এবং যোগেশ কদম রয়েছেন। বাকি দুই বিধায়ক মঞ্জুলা গাবিত এবং চন্দ্রকান্ত পাতিল নির্দল।

আজ কুর্লার বিধায়ক মঙ্গেশ কুডালকার এবং দাদরের বিধায়ক সাদা সারওয়াঙ্কর গুয়াহাটি যাচ্ছেন বলে খবর পাওয়া যাচ্ছে। তবে সকালে যে বিধায়করা গুয়াহাটিতে পৌঁছেছেন তাঁদের ওই দুজন রয়েছেন কিনা, তা এখনও পরিষ্কার নয়। ওই বিধায়করা যদি শিন্ডের শিবিরে যোগ দেন, তাহলে তাঁর পক্ষে শিবসেনার বিধায়কের সংখ্যা পৌঁছবে ৩৬-এ। আরও ১২ বিধায়কও শিন্ডের সঙ্গেই থাকবেন বলে জানা যাচ্ছে।

এদিকে, গতকাল শিন্ডে গোষ্ঠী রাজ্যপাল ভগত সিং কোশিয়ারিকে ৩৪ বিধায়কের স্বাক্ষরিত একটি চিঠি পাঠিয়েছে। চিঠিতে বলা হয়েছে, একনাথ শিন্ডে শিবসেনার বিধায়ক দলের নেতা। নতুন চিফ হুইপ নির্বাচিত হয়েছেন ভারত গোগাভালে। মঙ্গলবার শিবসেনা বিধানসভায় দলনেতার পদ থেকে শিন্ডেকে সরিয়ে দিয়েছে।

একনাথ শিন্ডে শিবিরের সমীকরণ

চিঠিতে ৩৪ জন বিধায়কের স্বাক্ষর করেছেন। তাঁদের মধ্যে ৪ জন নির্দল। সেক্ষেত্রে ৩৪-৪=৩০ বিধায়ক। স্বাক্ষরকারী নিতিন দেশমুখ ফিরে গিয়েছেন। তাহলে সংখ্যা হল ৩০-১=২৯। এরপর গতকাব সন্ধ্যায় যোগ দেন ৪ জন বিধায়ক। তাঁদের মধ্যে রয়েছেন গুলাবরাও পাতিল এবং যোগেশ কদম। বাকি ২ জন নির্দল বিধায়ক মঞ্জুলা গাবিত এবং চন্দ্রকান্ত পাতিল। সেক্ষেত্রে সংখ্যা হল ২৯+২=৩১। আরও ৩ জন সমর্থক হলেন মুম্বইয়ে দাদা ভুসে, সঞ্জয় রাঠোড় এবং সন্তোষ বাঙ্গার। অর্থাৎ সংখ্যা হল ৩১+৩=৩৪। মঙ্গেশ কুডালকার এবং সাদা সর্বঙ্করের পৌঁছনোর কথা। তাহলে সংখ্যা দাঁড়াচ্ছে ৩৪+২=৩৬। যোদ দেওয়ার কথা দীপক কেসরকরেরও।

মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবন ছাড়লেন উদ্ধব

এদিকে বুধবার দিনভর বৈঠকের পর সন্ধ্যায় মুখ্যমন্ত্রীর সরকারি বসভবন থেকে বেড়িয়ে মাতোশ্রীতে পৌঁছন উদ্ধব ঠাকরে। শুধু তাই নয়, ফেসবুকে লাইভে বিদ্রোহীদের তাঁর সঙ্গে কথা বলার আবেদনও জানান তিনি। 

আরও পড়ুনদক্ষিণবঙ্গে ৫ দিন ভারী বৃষ্টি নেই, উত্তরে ফের বাড়বে বর্ষণ, কবে?