scorecardresearch
 
 

বিজেপি-তে কেউ থাকবে না, তৃণমূলে যোগ দিয়েই বললেন মুকুল

জল্পনার অবসান। পুরনো দল তৃণমূলে ফিরলেন মুকুল রায় ও তাঁর ছেলে শুভ্রাংশু রায়।

মুকুল রায়  ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় মুকুল রায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়
হাইলাইটস
  • সম্ভবত তৃণমূলের পথে মুকুল রায়
  • আজই যোগ দিচ্ছেন তিনি
  • দেখা করবেন মমতার সঙ্গেও

জল্পনার অবসান। পুরনো দল তৃণমূলে ফিরলেন মুকুল রায় ও তাঁর ছেলে শুভ্রাংশু রায়। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে বৈঠকের পর তৃণমূলে যোগ দেন মুকুল। তিনি জানান, পুরোনো জায়গায় ফিরতে পেরে খুশি। মুকুলের প্রশংসা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। আজ সারাদিন কী কী হল, দেখুন একনজরে- 

  • মুকুল রায় কেন বিজেপি ছাড়লেন, কেন তৃণমূলে যোগ দিলেন এসব প্রশ্ন সাংবাদিকদের করতে বারণ করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর কথায়, 'তৃণমূল সবার দল। মুকুলকে আমরা গ্রহণ করেছি। সেটাই ফাইনাল। এনিয়ে আর কোনও প্রশ্নের উত্তর দেব না।'
  • যারা ভোটের সময় গদ্দারি করেছে, তাদের কোনওভাবেই তৃণমূলে ফেরানো হবে না। মুকুল ভোটের সময় তৃণমূল নিয়ে কোনও কথা বলেনি। কিন্তু, যারা গদ্দারি করেছে তাদের কোনওভাবেই দলে নেওয়া হবে না। 
  • বিজেপি-তে কেউ থাকবে না। সবাই তৃণমূলে ফিরে আসবে। জানালেন মুকুল রায়। 
  • মুকুল তৃণমূলে আসার ফলে মানসিক শান্তি পেল। ওকে ভয় দেখিয়ে বিজেপি নিয়ে গিয়েছিল। তবে আমরা শক্তিশালী আছি। মুকুল ঘরের ছেলে ঘরে ফিরল, এটা ভালো কথা, বললেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 
  • বিজেপি করতে পারব না, থাকতে পারব না বলেই তৃণমূলে ফিরলাম। 
  • মুকুল রায় বললেন, আমার ভালো লাগছে পুরোনো দলে ফিরে। বাংলা নিজের জায়গায় ফিরবে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাংলাকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন। পুরোনো ঘরে এসে আমার খুব ভালো লাগছে। পুরোনো সবার সঙ্গে দেখা হয়ে ভালো লাগছে। 
    নতুন আঙিনায় নতুন ছেলে-মেয়েদের সঙ্গে দেখা হচ্ছে
  • তৃণমূলে যোগ দিলেন মুকুল রায় ও শুভ্রাংশু রায়। তাঁদের দলে স্বাগত জানান অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। 
  • সাংবাদিক বৈঠক কক্ষে ঢুকলেন মমতা। সঙ্গে মুকুল। 
  • আজই আরও কয়েকজন নেতা ভার্চুয়ালি তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিতে পারেন বলে খবর। 
  • এখন তৃণমূল ভবনে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও মুকুল রায়ের মধ্যে বৈঠক চলছে। সেই বৈঠকে রয়েছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। 
  • তৃণমূল ভবনে রয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, সর্বভারতীয় সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, সুব্রত মুখোপাধ্যায়, পার্থ চট্টোপাধ্যায়রা। 
  • দুপুর সাড়ে ৪টে নাগাদ সাংবাদিক বৈঠক করতে পারেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর পাশে থাকতে পারেন মুকুল রায়। 
  • তৃণমূল ভবনে যাচ্ছি। নিজের বাসভবন থেকে বেরিয়ে স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন মুকুল রায়। সঙ্গে ছিলেন ছেলে শুভ্রাংশু রায়। এদিন তৃণমূল ভবনে এসেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুকুল রায়ের এই বক্তব্যে কার্যত স্পষ্ট তৃণমূলে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতির যোগ দেওয়ার কার্যত সময়ের অপেক্ষা।
  • জল্পনার অবসান। আজই সম্ভবত পুরনো দল তৃণমূলের পথে মুকুল রায় ও তাঁর ছেলে শুভ্রাংশু রায়। এমনই জল্পনা শুরু হয়েছে। বিগত কয়েকমাস গেরুয়া শিবিরের সঙ্গে দূরত্ব বেড়েছে তাদের। তবে জানা যাচ্ছে আজ তৃণমূল ভবনে গিয়ে যোগ দিতে পারেন তিনি। তৃণমূল ভবনে আজ আসবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ও। যদিও মুকুল শিবির থেকে এখনও কিছু বলা হয়নি।  এখন সল্টলেকের বাসভবনে রয়েছেন মুকুল রায়। সেখান হাজির হচ্ছেন তাঁর অনুগামীরাও।
  • বিধানসভা ভোটের সময় থেকে মুকুল রায়কে কোণঠাসা করা হচ্ছিল বলে অভিযোগ মুকুল শিবিরের। সাধারণত সংগঠনের কাজ দেখতে পছন্দ করেন। কিন্তু চলতি বিধানসভা নির্বাচনে কৃষ্ণনগর উত্তরের প্রার্থী করে পাঠানো হয়েছিল মুকুলকে। ফলে গোটা বিধানসভা পর্বেই দেখা যায়নি মুকুলকে। যদিও কৃষ্ণনগর উত্তর থেকে জিতেছেন তিনি। কিন্তু তারপর থেকেই কার্যত সক্রিয় ভূমিকায় আর মুকুলকে দেখা যায়নি। ফলে তাকে ঘিরে প্রবল জল্পনা শুরু হয়।
  • অন্যদিকে, রাজীবের ফেসবুক পোস্টের পরেও তার অবস্থান ঘিরে জল্পনা রয়েছে। বিজেপির কোনও মিটিংয়ে রাজীবকে আর দেখা যাচ্ছে না। তার অবস্থান নিয়েও শুরু হয়েছে জল্পনা। অপরদিকে, বিজেপি নেতা সব্যসাচী দত্ত প্রকাশ্যে বলেছিলেন হিন্দিভাষী নেতাদের নিয়ে বাংলা দখল সম্ভব নয়। তিনি বিজেপির সঙ্গে দূরত্ব বাড়িয়েছেন বলে জানা যাচ্ছে।