scorecardresearch
 
 
লাইফস্টাইল

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 1/6

প্রস্রাব করার এই ধরনটা আমাদের কাছে খুবই পরিচিত! কারণ, অধিকাংশ পুরুষই এই ভঙ্গিতে দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করেন। কিন্তু একাধিক গবেষণার রিপোর্টে গবেষকরা দাবি করেছেন যে, এই ভঙ্গিতে দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করার অভ্যাস মোটেই স্বাস্থ্যকর নয়!

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 2/6

নেদারল্যান্ডসের লেইডেন ইউনিভার্সিটি মেডিকেল সেন্টারের (Leiden University Medical Centre) একদল গবেষক তাঁদের গবেষণার রিপোর্টে দাবি করেছেন যে, দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করার অভ্যাস আমাদের মূত্রথলি ও কিডনির স্বাস্থ্যের পক্ষে বিপজ্জনক! চলুন জেনে নেওয়া যাক দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করলে কী কী স্বাস্থ্য সমস্যা হতে পারে...

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 3/6

দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করার অভ্যাস দীর্ঘদিনের হলে, বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ধীরে ধীরে কমতে থাকে প্রস্রাবের বেগ। ফলে শরীরের সমস্ত দূষিত পদার্থ পুরপুরি নির্গত হতে পারে না।

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 4/6

দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করলে প্রস্রাবের দূষিত পদার্থগুলি যথাযথ ভাবে শরীর থেকে নির্গত হতে পারে না। শরীরের দূষিত পদার্থ তখন মূত্রথলির নীচে গিয়ে জমা হতে থাকে। বিশেষজ্ঞদের মতে, বসে প্রস্রাব করলে মূত্রথলিতে চাপ পড়ে সহজেই শরীরের দূষিত পদার্থগুলি প্রায় সবটাই শরীর থেকে বেরিয়ে যায়।

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 5/6

দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করলে শরীরের দূষিত পদার্থগুলি যথাযথ ভাবে শরীর থেকে নির্গত হতে পারে না এবং সেগুলি মূত্রথলিতে জমতে জমতে প্রস্রাবের নির্গমন পথে বাধা সৃষ্টি করে। পরবর্তিকালে যা কিডনিতে পাথর সৃ্ষ্টি করে।

Wrong Urinating Habit: আপনিও কি এ ভাবেই প্রস্রাব করেন? অজান্তেই ডেকে আনছেন মারাত্মক বিপদ!
  • 6/6

দাঁড়িয়ে প্রস্রাব করলে শরীরের অনেক দূষিত পদার্থ শরীরের ভিতরেই থেকে যায়। এই দূষিত পদার্থ শরীরে জমতে জমতে ডায়াবেটিস, জন্ডিস বা মারাত্মক কিডনির অসুখে ঝুঁকি বহুগুণ বাড়িয়ে দেয়। এছাড়া, এই সব দূষিত পদার্থগুলি শরীরের অস্থিরতা, রক্তচাপ, হৃদস্পন্দনের গতিও বাড়িয়ে দেয়। সুতরাং, অভ্যাস বদলে সুস্থ শরীরে বাঁচুন দীর্ঘদিন।