scorecardresearch
 

Purple Tomato: ক্যানসার-ডায়বেটিস থেকে বাঁচাবে বেগুনি টমেটো, রয়েছে অবাক করা আরও সব গুণ

Purple Tomato: বাজারে আসছে বেগুনি টমেটো। বৈজ্ঞানিকেরা বলছেন যে এটি সাধারণ টমেটোর চেয়ে অনেক বেশি অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ। যা ক্যান্সার, ডায়বেটিস সহ একাধিক রোগের সঙ্গে লড়ার ক্ষমতা রাখে। সঙ্গে শরীরে একাধিক ব্যথা বেদনা দূর করে এবং কম করার শক্তিও রাখে এটি।

Purple Tomato: ক্যানসার-ডায়বেটিস থেকে বাঁচাতে তৈরি বেগুনি টমেটো, এর প্রচুর গুণ Purple Tomato: ক্যানসার-ডায়বেটিস থেকে বাঁচাতে তৈরি বেগুনি টমেটো, এর প্রচুর গুণ
হাইলাইটস
  • ক্যানসার-ডায়বেটিস থেকে বাঁচাবে বেগুনি টমেটো
  • রয়েছে অবাক করা আরও সব গুণ
  • বাজারে বিক্রির অনুমতিও মিলেছে

Purple Tomato: আমেরিকার কৃষি বিভাগ সম্প্রতি বেগুনি টমেটো বিক্রির অনুমতি দিয়েছে। আগামী বছরে আমেরিকায় সবজি মার্কেটে তা বিক্রি হবে। লাল এবং কখনও কখনও হলুদ টমেটো খেয়ে যদি আপনার মন ভরে যায়, তাহলে বেগুনি টমেটো ট্রাই করে দেখতে পারেন। কারণ বৈজ্ঞানিকেরা বলছেন যে এটি সাধারণ টমেটোর চেয়ে অনেক বেশি এন্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ। যা ক্যান্সার, ডায়বেটিস সহ একাধিক রোগের সঙ্গে লড়ার ক্ষমতা রাখে। সঙ্গে শরীরে একাধিক ব্যথা বেদনা দূর করে এবং কম করার শক্তিও রাখে এটি।

এর পিছনের কাহিনী

২০০৪ সালের ডিসেম্বর মাসে যখন প্ল্যান্ট সাইন্টিস্ট ক্যাথি মার্টিন নিজের গ্রিন হাউসে যান তখন তিনি নিজের টমেটো পরীক্ষা করে দেখছিলেন। বুড়ো আঙ্গুলের আকারের ছোট টমেটো ছিল এবং রং ছিল সবুজ। এই ছোট টমেটোগুলি রিসার্চ ল্যাবে পরীক্ষা জন্য ব্যবহার করা হয়। সাধারণভাবে টমেটো পাকলে লাল হয়ে যায়। কিন্তু যখন ক্যাথি মার্টিন ক্রিসমাসের পর গ্রিনহাউজ আসেন টমেটোগুলি বেগুনি হতে শুরু করে। তাঁরা আগে বিষয়টি আঁচ করেছিলেন।

বেগুনি টমেটো

কোন কোন জিন মেশানো হয়েছে?

ইংল্যান্ডের জন ইনস সেন্টারে (John Innnes Centre) ক্যাথি এবং তার টিম এমন টমেটো বানাতে প্রয়াস করছিলেন যার মধ্যে অ্যান্থোসায়ানিন এর মাত্রা বেশি থাকবে। এটি একটি উঁচুমানের অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, যা সাধারণভাবে ব্ল্যাকবেরি এবং ব্লু বেরিজে পাওয়া যায়। এরপরে ক্যাথি এবং তার টিম স্ন্যাপড্রাগন ফ্লাওয়ার থেকে দুটি জিন নেন এবং তাঁরা ওই টমেটোতে প্রবেশ করান। এই দুটি জিন অ্যান্থোসায়ানিন তৈরি করার জন্য অতি উত্তম।

বাজারে বিকোবে বেগুনি টমেটো

আগামী বছর থেকে কিছু টমেটো পরীক্ষামূলকভাবে মার্কেটে বিক্রি হবে। বেশ কিছু বছর ধরে ক্যাথি এবং তার টিম এই বেগুনি টমেটোর আকার এবং স্বাদ বড় করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাঁরা এখনও গবেষণা চালাচ্ছেন। কারণ শুরুতে এটি আকারে ছোট ছিল। এখন বড় হয়েছে। ইউএস ডিপার্টমেন্ট অফ এগ্রিকালচার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে এই টমেটো, কৃষি বিভাগ বেগুনি টমেটো ২০২৩ থেকে পরীক্ষামূলকভাবে বাজারে পাঠাতে পারে।

পারপল টমেটো

এভাবে উৎপাদন হবে এবং বাজারে আসবে

ক্যাথি মার্টিনের কোম্পানি বেগুনি টমেটো জুস (Purple Tomato Juice), সান ড্রায়েড টমেটো (Sun Dried Tomato), বিফস্টেক টমেটো (Beefsteak Tomatoes) বানাতে চায় এবং তার বীজও বাজারে বিক্রি করতে চান। ক্যাথি চান যে যারা নিজেরা টমেটো চাষ করতে চান, তাঁরা যেন নিজেরাই তা উৎপাদন করতে পারেন। এটা নয় যে ক্যাথির টমেটোই প্রথম জেনেটিক্যালি মডিফাইড সবজি, যে আমেরিকা অনুমতি দিয়েছে। সবার আগে জেনেটিক্যালি মডিফায়েড টমেটর ১৯৯৪তে FLVR SAVER বানিয়েছিল।


কৃষকদের লাভ এবং মানুষের স্বাস্থ্য সবার আগে

FLVR SAVER টমেটোর সমস্যা ছিল এটি সাধারণ টমেটোর তুলনায় বেশি দাম ছিল। এ কারণে বাজারে থেকে বাইরে চলে যায়। এরপর লোকেরা দাবি করে যে আমাদের বেশি ফায়দাওয়ালা ইঞ্জিনিয়ার্ড ফসল চাই, যা অত্যন্ত দামি হবে না, যা বিক্রি করে লাভ থাকবে। পাশাপাশি যাতে রসায়নে ক্ষতি না হয়, সঙ্গে ফসল বেশি পরিমাণে উৎপাদন করা যায়, যাতে তা বাণিজ্যিকভাবে চাষে লাভ হয়। এখানেই ক্যাথির বেগুনি টমেটো পাশ করে গিয়েছে।।

বেগুনি টমেটোর গুণ


বেগুনি টমেটো ক্যান্সার-ডায়াবেটিসে থেকে বাঁচাতে পারে 

টমেটোতে পাওয়া অ্যান্থোসায়ানিনের বহু গুণ। এটি এমন একটি অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ক্যান্সার থেকে বাঁচায়। টাইপ-টু ডায়াবেটিস থেকে সুরক্ষা প্রদান করে, সঙ্গে মানুষের জীবন শক্তি বাড়িয়ে দেয়। ২০০৮-এ ক্যাথি এবং তার টিম দেখেন যে এই টমেটো খেলে ইঁদুরের শরীরে ক্যান্সার রোধক ক্ষমতা বেড়ে যায়। যেসব ইঁদুরের ক্যান্সার ছিল, সেই সমস্ত ইঁদুরগুলি সাধারণ ক্যান্সার পীড়িত ইঁদুরের চেয়ে ৩০ শতাংশ বেশিদিন বাঁচে। যদিও জন্তু জানোয়ারের উপর হওয়া স্টাডি মানুষের উপর সম্পূর্ণ হবে কার্যকর হবে, তা জরুরি নয়। তবে এই টমেটোতে যা রয়েছে, তা শরীরের পক্ষে যে ভাল তা নিয়ে কোন সন্দেহ নেই।

শুধুমাত্র অ্যান্থোসায়ানিন কতটা ফায়দা দেবে

যদি আপনি আধকাপ ব্লুবেরি খেয়ে থাকেন, তাহলে আপনি এই টমেটোর অর্ধেকটা খেয়ে নিন। আপনার সমপরিমাণ অ্যান্থোসায়ানিন মিলবে। সাধারণভাবে একজন আমেরিকার নাগরিক গড়ে ১২.৫ মিলিগ্রাম অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট প্রতিদিন সেবন করেন। ক্যাথি মার্টিন জানিয়েছেন যে, তাঁদের অর্ধেক টমেটো আড়াইশো মিলিগ্রাম অ্যান্থোসায়ানিন শরীরে ছাড়বে। এ ছাড়া স্ন্যাপড্রাগন ফুলের জিনের আলাদা ফায়দা রয়েছে।