scorecardresearch
 

Diet According Blood Group: কাদের মাছ-মাংস বারণ? কারা সব খেতে পারেন? রক্তের গ্রুপ অনুযায়ী ডায়েট

রক্তের গ্রুপের সঙ্গে খাবার এবং পানীয়ের সরাসরি সম্পর্ক। একটি গবেষণার রিপোর্ট অনুযায়ী, মানুষের খাদ্যাভ্যাস সরাসরি রক্তের গ্রুপের সঙ্গে সম্পর্কিত। তাই রক্তের গ্রুপ অনুযায়ী খাবার বাছা উচিত। এমন রক্তে গ্রুপের মানুষও রয়েছেন যাঁদের চিকেন ও মাটন খাওয়া উচিত নয়। 

ব্লাড গ্রুপের সঙ্গে মিলিয়ে খান চিকেন। ব্লাড গ্রুপের সঙ্গে মিলিয়ে খান চিকেন।
হাইলাইটস
  • রক্তের গ্রুপ চার ধরনের- O, A, B এবং AB।
  • রক্তের গ্রুপের সঙ্গে খাবার এবং পানীয়ের সরাসরি সম্পর্ক।

অনেকেই মাছ-মাংস হজম করতে পারেন না। এমন বহু মানুষ আছেন যাঁদের পুষ্টিকর খাবার পেটে সয় না। কারও ছাতু খেলেও গ্যাস-অম্বলের সমস্যা হয়। কেউ আবার দুধও হজম করে ফেলেন। কারও সমস্যা। কেন এমনটা হয়? পুষ্টিবিদরা বলছেন, সব খাবার সবার পেটে সয় না। রক্তের গ্রুপের প্রভাবও পড়ে ব্যক্তির খাবার হজমের উপর। কোনও ব্যক্তি রক্তের গ্রুপ অনুযায়ী খাবার খেলে তাঁর স্বাস্থ্যের উপর অবশ্যই ইতিবাচক প্রভাব দেখা যাবে। রক্তের গ্রুপের ভিত্তিতে খাবার খেলে দ্রুত তা হজম হয়। 

রক্তের গ্রুপ চার ধরনের- O, A, B এবং AB। রক্তের গ্রুপের সঙ্গে খাবার এবং পানীয়ের সরাসরি সম্পর্ক। একটি গবেষণার রিপোর্ট অনুযায়ী, মানুষের খাদ্যাভ্যাস সরাসরি রক্তের গ্রুপের সঙ্গে সম্পর্কিত। তাই রক্তের গ্রুপ অনুযায়ী খাবার বাছা উচিত। এমন রক্তে গ্রুপের মানুষও রয়েছেন যাঁদের চিকেন ও মাটন খাওয়া উচিত নয়। 

O ব্লাড গ্রুপের ব্যক্তিদের প্রোটিনসমৃদ্ধ ডায়েট খাওয়া উচিত। খাদ্যতালিকায় রাখুন ডাল, মাংস, মাছ, ফল ইত্যাদি। শস্য এবং বিনসের পাশাপাশি খাদ্যে মটরশুটিও রাখুন। 

A ব্লাড গ্রুপের মানুষের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা ইমিউনিটি খুবই সংবেদনশীল। তাই খাবারের প্রতি আরও বেশি যত্ন নেওয়া দরকার। এই গ্রুপের লোকদের মাছ-মাংস কম খাওয়া উচিত। কারণ হজম হতে সময় লাগে। A ব্লাড গ্রুপের ব্যক্তিরা চিকেন-মাটন খাওয়া কমিয়ে দিন। তার পরিবর্তে গাজর, সবুজ শাক, নাশপাতি, রসুন, শস্য, মটরশুটি এবং ফল খান। এই রক্তের গ্রুপের ব্যক্তিদের সবুজ শাক-সবজি খাওয়াই শ্রেয়। 

রক্তের গ্রুপ B হলে বুঝবেন আপনি সবচেয়ে নিরাপদ। আসলে এই ব্লাড গ্রুপের ব্যক্তিদের খাবার নিয়ে বিশেষ বাদ-বিচার করতে হয় না। সবুজ শাক-সবজি, ফলমূল, মাছ, মাটন, চিকেন সবকিছুই খেতে পারেন। বি ব্লাড গ্রুপের লোকেরা প্রচুর পরিমাণে দুধ এবং ডেয়ারি পণ্য এবং ডিম খেতে পারেন। হজমে কোনও সমস্যা হয় না। 

AB রক্তের গ্রুপ বিরল বলে মনে করা হয়। খুব কম মানুষের মধ্যে পাওয়া যায়। এই ব্লাড গ্রুপের মানুষদের বেশি করে ফল ও সবজি খাওয়া উচিত। তাদের নন-ভেজ কম খাওয়া উচিত। অর্থাৎ মাছ-মাংস নিয়ন্ত্রণে রেখে খাওয়া উচিত। খুব বেশি খেলে পেটের সমস্যা দেখা দিতে পারে। দুগ্ধজাত খাবার, মাখন ইত্যাদি খেতে পারেন।

আরও পড়ুন- পিৎজায় আয়ু কমে ৭.৮ মিনিট, আর কোন কোন খাবারে ক'মিনিট যৌবন হারায়?