scorecardresearch
 

Career Based On Date Of Birth: জন্ম তারিখের সঙ্গে কেরিয়ারের সম্পর্ক গভীর, জানুন কোন পেশায় গেলে সফলতা আসবেই

যদি কোনও ব্যক্তি তাঁর জন্ম তারিখটি মাথায় রাখেন এবং সেই তারিখের সংখ্যার সঙ্গে সম্পর্কিত কেরিয়ার বেছে নেন, তবে তিনি জীবনে আরও সফল হন।

Advertisement
জন্মতারিখ অনুসারে পেশা জন্মতারিখ অনুসারে পেশা
হাইলাইটস
  • আপনার জন্ম তারিখ থেকেও দেখুন আপনি নিজের জন্য সঠিক কেরিয়ার বেছে নিয়েছেন কি না
  • জন্মের আগেই এটা ঠিক হয়ে গেছে যে কোন ক্ষেত্রে আপনি সফলতা পাবেন

কেরিয়ার নিয়ে চিন্তা করার দরকার নেই কারণ আপনার জন্মের আগেই এটা ঠিক হয়ে গেছে যে কোন ক্ষেত্রে আপনি সফলতা পাবেন, আপনাকে শুধু সেই দিকেই চেষ্টা করতে হবে। প্রায়শই সমস্যা আসে যখন, কারও পরামর্শে বা আপনার শখের কারণে, আপনি এমন একটি পেশা বেছে নেন যা আপনার জন্য সঠিক নয়। সংখ্যাতত্ত্ব অনুসারে, যদি কোনও ব্যক্তি তাঁর জন্ম তারিখটি মাথায় রাখেন এবং সেই তারিখের সংখ্যার সঙ্গে সম্পর্কিত কেরিয়ার বেছে নেন, তবে তিনি জীবনে আরও সফল হন। তাই আপনি আপনার জন্ম তারিখ থেকেও দেখুন আপনি নিজের জন্য সঠিক কেরিয়ার বেছে নিয়েছেন কি না এবং যদি না করেন তবে কোন ক্ষেত্রটি চেষ্টা করা আপনার পক্ষে ভাল হবে। চলুন জেনে নেওয়া যাক জন্ম তারিখ অনুসারে কোন পেশায় আপনার যাওয়া উচিত, যাতে আপনি জীবনে সফল হতে পারেন।

১, ১০, ১৯ বা ২৮ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ১, ১০, ১৯ বা ২৮, তাহলে তাঁরা সূর্যের সঙ্গে সম্পর্কিত। তাঁদের লেখাপড়ার ক্ষেত্রে সাধারণত প্রতিবন্ধকতা থাকে। শাসন, প্রশাসন, চিকিৎসা ও রাজনীতির ক্ষেত্র এই লোকদের সুবিধা দেয়। তাঁরা যে ক্ষেত্রেই থাকুন না কেন, তাঁরা সর্বদা নেতৃত্ব দেন। জীবনের শুরু থেকেই ক্যারিয়ার শুরু হয়। ২০২৩ সালে কর্মজীবনে কিছু উত্থান-পতন আসতে পারে।

প্রতিকার- সূর্য দেবতার উপাসনা আপনার কর্মজীবনে সাফল্য এনে দেবে।

২, ১১, ২০ বা ২৯ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ২, ১১, ২০ বা ২৯ তারিখ, তাঁরা চন্দ্রের সঙ্গে সম্পর্কিত। এই লোকেরা অনেক পরিশ্রম করে তাঁদের শিক্ষা শেষ করেন। শিল্প, চলচ্চিত্র, চিকিৎসা, নৌবাহিনী, শিক্ষা এবং খাদ্য ও পানীয়ের ক্ষেত্রগুলি তাঁদের সুবিধা দেয়। তাঁরা তাদের সব সমস্যার সমাধান করেন। ক্যারিয়ারের শুরুতে বিলম্ব হলেও সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সব সমস্যা দূর হয়ে যায়। ২০২৩ সালে ক্যারিয়ারে বড় পরিবর্তন আনতে হতে পারে।

Advertisement

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য শিবের পুজো করুন।

৩, ১২, ২১ বা ৩০ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৩, ১২, ২১ বা ৩০, তাঁরা বৃহস্পতির সঙ্গে সম্পর্কিত। এই লোকেরা জ্ঞানী হিসাবে বিবেচিত হন, তাই তাঁদের শিক্ষা এবং বুদ্ধিবৃত্তিক অবস্থা ভাল। তাঁরা শিক্ষা, ধর্ম, আইন, গণমাধ্যম ও সহযোগিতার ক্ষেত্রে সুবিধা পান। ক্যারিয়ারের শুরুতে তাঁদের অনেক সংগ্রাম করতে হয়। ২০২৩ সালে কর্মজীবন এবং জায়গায় বড় পরিবর্তনের সম্ভাবনা রয়েছে।

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য শ্রী বিষ্ণুর পুজো করুন।

৪, ১৩, ২২ বা ৩১ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৪, ১৩, ২২ বা ৩১, তাঁদের সম্পর্ক রাহুর সঙ্গে। সাধারণত তাঁদের শিক্ষায় উত্থান-পতন থাকে। তাঁরা পড়াশোনা করে অন্য কিছু করেন। এই লোকেরা কম্পিউটার, ইলেকট্রিক্যাল বা ইলেকট্রনিক্স, জ্যোতিষশাস্ত্র এবং বিপণনের ক্ষেত্রে ভাল। কর্মজীবন শুরু হয় অল্প বয়সে। ২০২৩ সালে ক্যারিয়ারে বড় সিদ্ধান্তের জন্য সতর্ক থাকুন।

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য ভগবান শিবের পুজো করুন।

৫, ১৪ বা ২৩ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৫, ১৪ বা ২৩, তাঁরা বুধের সঙ্গে সম্পর্কিত। এই লোকদের শিক্ষা মধ্যম থাকে। তাঁদের জন্য ব্যাঙ্কিং, অর্থ, বিপণন ও বাণিজ্যের ক্ষেত্র ভাল। এই লোকেরা সব ধরণের পরিস্থিতি খুব ভালভাবে পরিচালনা করতে পারেন। ২০২৩ সালে অনেকগুলি ভিন্ন জিনিস করার চেষ্টা করবেন।

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য গণেশ দেবতার পুজো করা সবচেয়ে উপকারী।

৬, ১৫ বা ২৪ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৬, ১৫ বা ২৪ তারিখ, তাহলে তাঁদের সম্পর্ক শুক্রের সঙ্গে। তাঁরা শিক্ষার ক্ষেত্রে অনেক পরিবর্তন আনেন, তবেই যে কোনও একটি ক্ষেত্রে একটি পথ তৈরি করা যায়। তাঁদের জন্য ফিল্ম, মিডিয়া, মেডিসিন, কেমিক্যাল, জুয়েলারি, সৌন্দর্য, শিক্ষা ইত্যাদি ক্ষেত্রগুল ভাল। ক্যারিয়ার তাড়াতাড়ি শুরু হয়, যদিও সাফল্য দেরিতে আসে।

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য লক্ষ্মীর আরাধনা।

৭, ১৬ বা ২৫ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৭, ১৬ বা ২৫, তাঁরা কেতুর সঙ্গে সম্পর্কিত। এই লোকেরা শিক্ষার দিক থেকে মধ্যপন্থী হলেও খুব বুদ্ধিমান এবং সৃজনশীল হয়। প্রকৌশল, প্রযুক্তি, ব্যবস্থাপনা, সৃজনশীলতা, দর্শন বা ভ্রমণের ক্ষেত্র তাঁদের জন্য ভাল হবে। ক্যারিয়ারে কিছু সময়ের জন্য উত্থান-পতন রয়েছে। কিন্তু, কিছু সময়ের পরে এই লোকেরা তাঁদের নিজের কাজ করতে পছন্দ করেন।

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য ভগবান শিবের পুজো করুন।

৮, ১৭ বা ২৬ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৮, ১৭ বা ২৬, তাঁদের শনি গ্রহের সঙ্গে সম্পর্কিত। তাঁদের লেখাপড়ার অবস্থা ভাল হলেও নানা প্রতিবন্ধকতার কারণে লেখাপড়া সম্ভব হচ্ছে না। প্রায়শই, বিলম্বের পরেই তাঁরা তাঁদের কাঙ্খিত শিক্ষা পান। তাঁদের জন্য কারখানা, শিল্প, লোহা, কয়লা, শিক্ষা, আইনের ক্ষেত্র সেরা। ক্যারিয়ার খুব তাড়াতাড়ি শুরু হয়।

প্রতিকার-কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য শনিদেবের পুজো করুন।

৯, ১৮ বা ২৭ জন্ম তারিখ

যাদের জন্ম তারিখ ৯, ১৮ বা ২৭, তাঁরা মঙ্গল গ্রহের সঙ্গে সম্পর্কিত। তাঁদের শিক্ষার অবস্থা পরিমিত থাকে। সাধারণত এই লোকেরা কিছু ভিন্ন ধরনের শিক্ষা গ্রহণ করেন। সেনাবাহিনী, পুলিশ, প্রশাসন, কারখানা, জমি ও পরিশ্রমের এলাকা সেরা। তাঁরা যেখানেই থাকুক না কেন, তাঁরা অন্য লোকেদের দৃষ্টিভঙ্গির সঙ্গে একমত হতে দেন। খুব অল্প বয়স থেকেই ক্যারিয়ার শুরু হন।

Advertisement

প্রতিকার- কর্মজীবনে সাফল্যের জন্য হনুমানের পুজো করুন।

Advertisement