scorecardresearch
 
স্পেশাল

Tu 160 Black Jack Bomber: ঘণ্টায় গতিবেগ ২২০০ কিমি, ভারতে আসছে এই দৈত্যাকার বোমারু বিমান?

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 1/9

ভারতের এখনও পর্যন্ত নিজস্ব বোমারু বিমান নেই। অর্থাৎ বিমান ব্যবহার করে শত্রুদেশে বড় বড় বোমা ফেলে চলে আসা যায়। এগুলি হাইপারসনিক, ক্রুজ এবং সুপারসনিক পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলার জন্য ব্যবহার করা যায়। এবার শোনা যাচ্ছে, রাশিয়া থেকে বোমারু বিমান আমদানি করতে পারে ভারত। রাশিয়ার সঙ্গে এস-৪০০ এয়ার ডিফেন্স চুক্তি সম্পন্ন হওয়ার পর বোমারু বিমান নিয়েও পাকা কথা হতে পারে বলে খবর। (ছবি- গেটি)
 

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 2/9

অতিসম্প্রতি চাণক্য ফাউন্ডেশনের 'চাণক্য ডায়লগস' শীর্ষক অনুষ্ঠানে প্রাক্তন বায়ুসেনা প্রধান অরূপ রাহা বোমারু বিমান নিয়ে ইঙ্গিত দিয়েছিলেন। এনিয়ে তাঁকে প্রশ্ন করেছিলেন ভরত কর্নাড নামে এক প্রতিরক্ষা বিশেষজ্ঞ। টুপোলেভ টিউ ১৬০ ব্ল্যাক জ্যাক বোমারু বিমানের  (Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber) বিশেষত্ব কী?

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 3/9

Tu-160 বোমারু বিমানটি রাজহাঁস নামেও পরিচিত। ন্যাটোতে এর রিপোর্টিং নাম ব্ল্যাক জ্যাক। এটি একটি সুপারসনিক ভেরিয়েবল সুইপ উইং বৃহদাকার স্ট্র্যাটেজিক বোমারু বিমান। যার নকশা ১৯৭০ সালে সোভিয়েত ইউনিয়নের টুপোলেভ ডিজাইন ব্যুরো তৈরি করেছিল। প্রথম বিমান তৈরি হয়েছিল ১৯৮১ সালের ডিসেম্বরে। ১৯৮৭ সাল থেকে এই বিমান রুশ বাহিনীতে রয়েছে। (ছবি- এএফপি)

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 4/9

পরীক্ষামূলকভাবে ৯টি Tu-160 ব্ল্যাক জ্যাক বোমারু বিমান তৈরি করা হয়েছিল। তার পর আরও ২৭টি তৈরি করা হয়। ২০১৬ সাল থেকে রাশিয়ান বিমান বাহিনীর লং রেঞ্জ অ্যাভিয়েশন শাখায় ১৬টি এই ধরনের বিমান রয়েছে। সেনাবাহিনীতে আরও ৫০টি Tu-160M ​​বোমারু বিমান যুক্ত করার পরিকল্পনা করছে মস্কো।(ছবি- গেটি)

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 5/9

Tu-160 ব্ল্যাক জ্যাক বোম্বারে থাকেন ৪ জন- একজন পাইলট, একজন সহ-পাইলট, একজন বোম্বার্ডিয়ার এবং একজন ডিফেন্সিভ সিস্টেম অফিসার। এই বোমারু বিমান ১৭৭.৬ ফুট লম্বা। এর ডানার বিস্তার ১৮২.৯ ফুট। উচ্চতা ৪৩ ফুট। খালি বিমানের ওজন ১.১০ লক্ষ কেজি। টেকঅফের সময় সর্বোচ্চ ওজন ২.৭৫ লক্ষ কেজি পর্যন্ত পৌঁছয়। (ছবি: এএফপি)

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 6/9

Tu-160 ব্ল্যাক জ্যাক বোমারু বিমান ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ২২২০ কিলোমিটার। এই গতিতে ৪০,০২৬ ফুট উচ্চতায় উড়তে সক্ষম। সাধারণত এটি ঘণ্টায় ৯৬০ কিলোমিটার বেগে ওড়ে। একবারের জ্বালানিতে ১২,৩০০ কিলোমিটার পর্যন্ত উড়তে পারে। (ছবি: এএফপি)
 

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 7/9

যুদ্ধের সময় এর কমব্যাট রেঞ্জ ২০০০ কিলোমিটার। যা সাবসনিক গতিতে ৭৩০০ কিমি বাড়ানো যায়। এটি সর্বোচ্চ ৫২ হাজার ফুট উচ্চতায় উড়তে পারে। আকাশে আরোহণের গতি প্রতি মিনিটে ১৪ হাজার ফুট, অর্থাৎ এক মিনিটে সাড়ে ৪ কিলোমিটার উচ্চতা। (ছবি: এএফপি)
 

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 8/9

Tu-160 ব্ল্যাক জ্যাক বোম্বারে কী কী বোমা রাখা যায়? এ ব্যাপারে কোনও তথ্য নেই। তবে বলা হচ্ছে, এই বিমান ৪৫ হাজার কিলোগ্রাম ওজনের বোমা নিয়ে উড়তে সক্ষম। এছাড়া এর ভিতরে রয়েছে দু'টি রোটারি লঞ্চার। প্রতিটি লঞ্চার 6টি raduga kh55sm/101/101/555 ক্রুজ মিসাইল বা ১২টি AS-16 কিকব্যাক ছোট পাল্লার পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্র রাখতে পারে। (ছবি: এএফপি)
 

Tupolev Tu-160 Black Jack Bomber
  • 9/9

ভারতীয় বিমান বাহিনীতে এই বোমারু বিমান অন্তর্ভুক্ত হলে কয়েক মিনিটের মধ্যে দেশের যে কোনও প্রান্তে পৌঁছনো যাবে। পারমাণবিক অস্ত্রযুক্ত সুপারসনিক ক্রুজ মিসাইল বা হাইপারসনিক গ্লাইড ভেহিকেল রাখা যেতে পারে এই বিমানে। নিঃসন্দেহে ভারতের শক্তি অনেকটা বেড়ে যাবে। (ছবি: গেটি)