scorecardresearch
 

Tiktok-Bgmi : ভারতে ফের ফিরছে TikTok BGMI, দাবি করলেন CEO

বহুল জনপ্রিয় BGMI গেমস ভারতে নিষিদ্ধ হয়েছে। তবে নাম বদলে এই গেমস ভারতে ফের চালু হওয়ার তালিকায় সব থেকে উপরে ছিল। এই গেমকে Apple Store ও Play Store থেকে রিমুভও করা হয়েছে। যদিও এই অ্যাপকে প্রথম থেকেই PUBG Mobile-এর দেশি ভার্সন বলে দাবি করা হচ্ছিল।

ফাইল ছবি ফাইল ছবি
হাইলাইটস
  • কয়েক মাস আগে, TikTok-এর মূল সংস্থা Byetdance ভারতে ফিরে আসার জন্য মুম্বইয়ের এক সংস্থার সঙ্গে কথা-বার্তা শুরু করেছিল
  • স্কাইস্পোর্টসের CEO শিব নন্দী নিশ্চিত করেছেন যে, ভারতে tIKtok ফিরছে

বহুল জনপ্রিয় BGMI গেমস ভারতে নিষিদ্ধ হয়েছে। তবে নাম বদলে এই গেমস ভারতে ফের চালু হওয়ার তালিকায় সব থেকে উপরে ছিল। এই গেমকে Apple Store ও Play Store থেকে রিমুভও করা হয়েছে। যদিও এই অ্যাপকে প্রথম থেকেই PUBG Mobile-এর দেশি ভার্সন বলে দাবি করা হচ্ছিল। 

প্রসঙ্গত, PUBG মোবাইল ছিল ভারতের অন্যতম জনপ্রিয় মোবাইল গেম। সেই সময় আরও একটি অ্যায় (TikTok App) দেশে বেশ জনপ্রিয় ছিল। ২০২০ সালে নিষিদ্ধ হওয়া অ্যাপের তালিকায় TikTok-এর নামও ছিল। জাতীয় নিরাপত্তার কারণে এই অ্যাপটিকে সরকার অন্য অ্যাপের সঙ্গে নিষিদ্ধ ঘোষণা করে। এখন শোনা যাচ্ছে, এই অ্যাপটি ফিরতে চলেছে। 

আরও পড়ুন : ৬০ কিমি বেগে ঝোড়ো হাওয়া-অতি ভারী বৃষ্টি; দক্ষিণবঙ্গে জারি সতর্কতা

সত্য়িই কি ফিরছে TikTok? 

কয়েক মাস আগে, TikTok-এর মূল সংস্থা Byetdance ভারতে ফিরে আসার জন্য মুম্বইয়ের এক সংস্থার সঙ্গে কথা-বার্তা শুরু করেছিল। স্কাইস্পোর্টসের CEO শিব নন্দী নিশ্চিত করেছেন যে, ভারতে tIKtok ফিরছে। তিনি জানিয়েছেন, দেশে টিকটক ফেরার প্রস্তুতি নিচ্ছে।

তিনি বলেছিলেন, 'যদি সূত্রের খবর বিশ্বাস করা যায়, তাহলে আমি বলব টিকটক ভারতে ফিরতে প্রস্তুত। এমতাবস্থায় BJMI-ও ফিরে আসবে। নন্দী তাঁর ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে এই কথা জানিয়েছিলেন। BGMI প্রসঙ্গে নন্দী বলেন, 'এই সিদ্ধান্ত হঠাৎ করে নেওয়া হয়নি। গত ৫ মাস ধরে নিষেধাজ্ঞার পর থেকেই ফেরানোর প্রক্রিয়ার বিষয়টি ভাবনা-ডিন্তা চলছিল।'

শিব নন্দী আরও জানান, BJMI-কে নিষিদ্ধ করার সিন্ধান্ত হঠাৎ করে নেওয়া হয়নি। ৫ মাস ধরে এর প্রক্রিয়া চলছিল। এমনকী প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে ফেলার এক সপ্তাহ আগেই সরকারের তরফে ক্র্যাফটনের সদর দফতরে নোটিশও পাঠানো হয়েছিল। 

Skyesports-এর CEO-র কথা মতো ভারতে ফের চালু হতে পারে BJMI ও Tiktok। তবে এর আগেও এই দুটি অ্য়াপ ভারতে ফের চালু হতে পারে বলে শোনা গিয়েছিল।