scorecardresearch
 

কুকুরের মুখে সদ্যোজাত-র শব, শিউরে উঠলেন জনতা, মালদায় চাঞ্চল্য

কুকুরের মুখে ধরা সদ্যোজাত-র শব, খুবলে খাচ্ছে দেহ। যা দেখে শিউরে উঠলেন জনতা। ঘটনায় মালদায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

মালদা মেডিক্যাল কলেজ মালদা মেডিক্যাল কলেজ
হাইলাইটস
  • সদ্যোজাতর দেহ খুবলে খেল কুকুর
  • ঘটনা দেখে শিউরে উঠেছে এলাকাবাসী
  • নার্সিংহোম থেকে আসতে পারে দেহ বলে আশঙ্কা

অর্বজনার স্তুুপে পড়ে রয়েছে সদ্যোজাত শিশুর শব। সবার অলক্ষ্যে সেই শিশুর মৃতদেহ খুবলে খাচ্ছে কুকুর। এমন ঘটনা নডরে আসতেই শিউরে উঠলেন এলাকার লোকজন। প্রকাশ্য়ে আসার পর বিষয়টি নিয়ে যথাযথ তদন্তের দাবি উঠেছে। সেই সঙ্গে এলাকায় নজরদারিও দাবি করা হয়েছে এলাকাবাসীর তরফে। 

ঘটনাটি ঘটেছে মালদা মেডিকেল কলেজ সংলগ্ন পুরাতন মর্গের সামনে ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়কের রেল লাইনের ধারে। ঘটনায় ওই এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানিয়েছেন, কুকুর ওই সদ্যোজাতের দেহের নীচের অর্ধেক শরীর খুবলে খেয়ে ফেলেছিল। বাকিটা মুখে নিয়ে নাড়াচাড়া করছিল। যে দৃশ্য দেখে হাড় হিম হয়ে যায় স্থানীয়দের। 

দেহের নীচের অংশ আগেই খেয়ে ফেলার ফলে ওই সদ্যোজাতটি ছেলে না মেয়ে জানা যায়নি। পরে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় ইংরেজবাজার থানার পুলিশ। খুবলে খাওয়া মৃত সদ্যোজাতের দেহটি উদ্ধার করে মেডিকেল কলেজের ময়না তদন্তে পাঠায় পুলিশ।

স্থানীয় বাসিন্দারা পুলিশকে জানিয়েছেন, মেডিকেল কলেজ সংলগ্ন জাতীয় সড়কের ধারে ওই সদ্যোজাতের দেহটি নিয়ে টানাটানি করছিল পথ কুকুরের দল। এরপরই কুকুরকে  তাড়িয়ে দেয় এলাকাবাসী। পরে ওই শিশুটি দেহ উদ্ধার হয়। 

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, আশপাশের এলাকায় বেশ কিছু নার্সিংহোম রয়েছে। কেউ বা কারা রাতের অন্ধকারে ওই সদ্যোজাতের দেহটি ফেলে পালিয়ে যায়। এই ধরনের ঘটনার প্রকৃত তদন্ত করে পুলিশকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি করেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।