scorecardresearch
 

পার্থকে নিয়ে মন্তব্যের জের, কুণালকে 'সেন্সর' করল TMC

এসএসসি দুর্নীতি মামলায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করেছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ED)। ইডি হেফাজতের পর তাঁকে জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। তার প্রেক্ষিতে তৃণমূলের রাজ্য সম্পাদক মন্তব্য করেন, "পার্থকে বুঝতে হবে জেলে কেমন লাগে। আমি যেভাবে আমার জীবন জেলে কাটিয়েছি, পার্থও তাই করুন।"

পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও কুণাল ঘোষ (বামদিক থেকে) পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও কুণাল ঘোষ (বামদিক থেকে)
হাইলাইটস
  • কুণালের ওপরে নিষেধাজ্ঞা
  • সংবাদমাধ্যমে রাখা যাবে না বক্তব্য
  • নির্দেশ তৃণমূল কংগ্রেসের

পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে মন্তব্যের প্রেক্ষিতে দলের রাজ্য সম্পাদক তথা মুখপাত্র কুণাল ঘোষকে 'সেন্সর' করলো তৃণমূল কংগ্রেস (TMC)। সূত্রের খবর, কুণাল ঘোষকে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে নিয়ে সংবাদমাধ্যমে কোনও মন্তব্য না করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ১৪ দিনের জন্য কুণালকে মিডিয়াতে মুখ না খোলার নির্দেশ দিয়েছে তৃণমূল।

এসএসসি দুর্নীতি মামলায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করেছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ED)। ইডি হেফাজতের পর তাঁকে জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। তার প্রেক্ষিতে তৃণমূলের রাজ্য সম্পাদক মন্তব্য করেন, "পার্থকে বুঝতে হবে জেলে কেমন লাগে। আমি যেভাবে আমার জীবন জেলে কাটিয়েছি, পার্থও তাই করুন।"

প্রসঙ্গত, পার্থ চট্টোপাধ্যায় (Partha Chatterjee) গ্রেফতার হওয়ার পর তাঁর বিরুদ্ধে সবচেয়ে বেশি সোচ্চার হয়েছেন কুণাল ঘোষ। এসএসসি কেলেঙ্কারিতে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম জড়ানোর পর তাঁকে সরাসরি টার্গেট করেন কুণাল। আর গ্রেফতারের পর সেই আক্রমণের মাত্রা আরও বাড়িয়ে দেন তিনি। তবে এবার দলীয় নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়লেন তৃণমূলের মুখপাত্র। তৃণমূল সূত্রে খবর, কুনালকে (Kunal Ghosh) দল 'সেন্সর' করেছে। পার্থকে নিয়ে মুখ বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সূত্র মারফৎ আরও জানা গিয়েছে, পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে (Arpita Mukherjee) নিয়ে মন্তব্য করার সময় নেতারা যাতে কোনওভাবেই দলীয় লাইন অতিক্রম না করেন সেই নির্দেশও দিয়েছে তৃণমূল। একইসঙ্গে কুণাল ঘোষকে ১৪ দিন সংবাদমাধ্যমের সামনে বক্তব্য রাখতে নিষেধ করেছে দলীয় নেতৃত্ব। 

আরও পড়ুনবিয়ের আসরে Amazon-এ গোরের মালা অর্ডার বরের, VIRAL