scorecardresearch
 

First Cloned Wild Arctic Wolf: কুকুর জন্ম দিল 'মায়া'র, বিশ্বের প্রথম ক্লোনড নেকড়ে, VIDEO

আর্কটিক নেকড়েটির জন্য সারোগেট হিসাবে নির্বাচিত করা হয়েছিল একটি কুকুরকে। কারণ কুকুরদের সঙ্গে নেকড়েদের পূর্বপুরুষদের জেনেটিকে মিল পাওয়া গেছে, তাই এই ক্লোনিং কৌশলের মাধ্যমে পরীক্ষাটি সফল হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

মায়া, চিনে ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে তৈরি একটি বিলুপ্তপ্রায় আর্কটিক নেকড়ে মায়া, চিনে ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে তৈরি একটি বিলুপ্তপ্রায় আর্কটিক নেকড়ে
হাইলাইটস
  • বিশ্বের বিলুপ্তির দ্বারপ্রান্তে উপনীত আর্কটিক উলফকে বাঁচানোর প্রচেষ্টায় দারুণ সাফল্য মিলেছে।
  • ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে নতুন নেকড়ে শাবক তৈরি করেছে চিন

বিশ্বের বিলুপ্তির দ্বারপ্রান্তে উপনীত আর্কটিক উলফকে বাঁচানোর প্রচেষ্টায় দারুণ সাফল্য মিলেছে। ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে নতুন  নেকড়ে শাবক তৈরি করেছে চিন।  মনে করা হচ্ছে,এই পদ্ধতি আগামী দিনে আর্কটিক নেকড়েকে বাঁচাতে সাহায্য করতে পারে। চিনা ল্যাবে প্রথমবারের মতো আর্কটিক নেকড়েদের ক্লোনিং করে একটি নতুন নেকড়ে তৈরি করা হয়েছে। যদিও এই  নেকড়েটির বয়স এখন ১০০ দিন।

 

 

প্রথমবারের মতো, একটি বন্য আর্কটিক নেকড়ে সফলভাবে চিন অবস্থিত একটি জিন ফার্ম দ্বারা ক্লোন করা হয়েছে। চিনা সংস্থা, সিনোজেন বায়োটেকনোলজি মায়া নামের বিশ্বের প্রথম ক্লোন করা বন্য আর্কটিক নেকড়েটির একটি ভিডিও প্রকাশ করেছে। যদিও এই ভিডিওটি তার জন্মের ১০০ দিন পর বেজিং ল্যাবে প্রকাশ করা হয়েছে।

১০০ দিন আগে জন্ম হয়েছিল
এই সাফল্যের পর প্রতিষ্ঠানটির আধিকারিক ও বিজ্ঞানীরা জানান, ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে আমরা বিশ্বের বিরল ও বিলুপ্তির পথে থাকা প্রাণীগুলিকে বাঁচাতে পারব।

 

চিনা ওয়েবসাইট গ্লোবাল টাইমস জানিয়েছে যে মায়া নামের প্রথম ক্লোন করা বন্য আর্কটিক নেকড়েটির বয়স ১০০ দিন এবং এখন সে সুস্থ রয়েছে। মায়ার ডোনার সেল হল একটি বন্য মহিলা আর্কটিক নেকড়ের স্কিন স্যাম্পেল। প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে যে এটির ডিম্বাণু  একটি মহিলা কুকুরের এবং এর সারোগেট মা একটি বিগল।

 

 

আর্কটিক নেকড়ের ক্লোনিং একটি মহিলা কুকুরের সংযোজিত ডিম্বাণু  এবং একটি বন্য মহিলা আর্কটিক নেকড়ের সোম্যাটিক কোষ থেকে ১৩০ টিরও বেশি নতুন ভ্রূণ তৈরি করে সম্পন্ন হয়েছিল। ৮০ টিরও বেশি ভ্রূণ তখন সাতটি বিগলের জরায়ুতে স্থানান্তরিত হয়েছিল, যার মধ্যে একটি সুস্থ নেকড়ে হিসাবে জন্মগ্রহণ করেছিল।

কেন  নেকড়ে জন্য  সারোগেট হিসাবে কুকুরের চয়ন হল
বিশেষজ্ঞরা চিনা ওয়েবসাইট গ্লোবাল টাইমসকে বলেছেন যে কুকুরটিকে নেকড়ের সারোগেট হিসাবে বেছে নেওয়া হয়েছিল কারণ কুকুর  প্রাচীন নেকড়েদের সাথে জেনেটিক পূর্বপুরুষ ভাগ করে এবং ক্লোনিং কৌশলের মাধ্যমে পরীক্ষাটি সফল হওয়ার সম্ভাবনা সেই কারণে বেশি।

 

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে যে ক্লোন করা বন্য নেকড়ে মায়া এখন তার সারোগেট বিগলের সাথে একটি পরীক্ষাগারে রয়েছে এবং পরে উত্তর-পূর্ব চিনের হেইলংজিয়াং প্রদেশের হারবিন পোলারল্যান্ডে তাকে পৌঁছে দেওয়া হবে এবং জনসাধারণের সামনে  প্রদর্শন করা  হবে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, ক্লোনিং প্রযুক্তি আরও বিরল ও বিপন্ন প্রাণীদের প্রজননে অনেক দূর এগিয়ে যাবে।

 

 

আর্কটিক নেকড়ে জন্ম ১০ জুন
এই নতুন আবিষ্কার সম্পর্কে, কোম্পানির ম্যানেজার মি জিডং বলেছেন যে বিলুপ্তপ্রায় প্রাণীদের বাঁচানোর জন্য, আমরা হারবিন পোলারল্যান্ডের সহযোগিতায় ২০২০ সালে আর্কটিক নেকড়ের  ক্লোনিং শুরু করেছি। দুই বছরের কঠোর পরিশ্রমের পর এখন এই ক্লোনিং সফল হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, বিশ্বে এই ধরনের প্রথম ঘটনা এটি। আর্কটিক নেকড়েদের ক্লোনিং ক্লোনিং প্রযুক্তির অগ্রগতির ক্ষেত্রে একটি মাইলফলক হিসেবে প্রমাণিত হবে কারণ বিলুপ্তির দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে যাওয়া এই ধরনের প্রজাতিকে সংরক্ষণ  করা প্রয়োজন। এই আর্কটিক নেকড়েটি এই বছরের ১০ জুন জন্মগ্রহণ করেছিল।  মায়া নামের এই নেকড়ে শাবকটি এই মুহূর্তে সুস্থ আছে।