scorecardresearch
 
 
টলিউড

Nusrat Jahan: প্রেম-বিয়ে-বিচ্ছেদ, ২ বছরের ঘটনাবহুল জীবন নুসরত-নিখিলের

নুস
  • 1/14

একটা সময় ছিল যখন ব্যবসায়ী নিখিল জৈন (Nikhil Jain) এবং অভিনেত্রী-সাংসদ নুসরত জাহানের (Nusrat Jahan) প্রেম টলিউডের অলিগলিতে চর্চার বিষয় ছিল।

নুস
  • 2/14

এর আগে এক বিখ্যাত প্রযোজনা সংস্থার এক কর্তার নুসরতের লিঙ্ক-আপ নিয়ে চর্চা কম হয়নি। অনেকেই বলেন, নুসরতের জন্য সেই কর্তা এবং তাঁর স্ত্রী-র বিচ্ছেদ হয়েছিল।

নুস
  • 3/14

তবে সে সমস্ত খবর উড়িয়ে ২০১৯ সালে সাত পাকে বাঁধে পড়েন লিখিল-নুসরত। তুরস্কের বোদরুমে দুই পরিবারের ঘনিষ্টদের সান্নিধ্যে ডেস্টিনেশন ওয়েডিং সারেন দুজনে।

নুস
  • 4/14

একটি শাড়ির বিজ্ঞাপনে কাজ করার সময় আলাপ হয় নুসরত এবং নিখিলের। সেখান থেকে বন্ধুত্ব। কিছু দিনের মধ্যে ঘনিষ্ট বন্ধুত্ব গড়ায় প্রেম পর্যন্ত। তার পরই পরিবারের সম্মতি নিয়ে বিয়ে করেন দুজনে।

নুস
  • 5/14

বিয়ের পর দুজনেরই সোশাল মিডিয়ায় সুখী দাম্পত্যের চিহ্ন ছড়ানো থাকত। পুজো থেকে পার্টি এক সঙ্গে দেখা যেত সেলিব্রিটি কাপলকে।

নুস
  • 6/14

তবে বছর খানেকের মধ্যে চিত্রটা পাল্টে গেল ধীরে ধীরে। নিখিলের জন্মদিনের আগের রাত্রে আচমকা হাসপাতালে ভর্তি হন নুসরত। জৈন পরিবার সংবাদমাধ্যমকে অন্য বিবৃতি দিলেও, কানাঘুষো শোনা গিয়েছিল যে ঘুমের ওষুধের ওভারডোজ ছিল নায়িকার অসুস্থতার কারণ।

নুস
  • 7/14

শোনা গিয়েছিল যে অন্য এক মহিলার সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েছেন নিখিল আর সেই জন্যই মানসিক ভাবে ভেঙে পড়েছেন নুসরত।

নুস
  • 8/14

তবে এর মাঝেই টলিপাড়ায় জোর গুঞ্জন শুরু হয় যশ (Yash Dasgupta) এবং নুসরতের বন্ধুত্ব নিয়ে। 'এসওএস কলকাতা' (SOS Kolkata) ছবির সেটে দুই অভিনেতার বন্ধুত্ব নিয়ে শুরু হয় জল্পনা।

নুস
  • 9/14

দুজনে এক সঙ্গে রাজস্থান ঘুরে আসেন। এক সঙ্গে পুজো দিতে যান দক্ষিণেশ্বরে। পার্টি থেকে মহরত, যশের সঙ্গে দেখা যেত নুসরতকে।

নুস
  • 10/14

তার মাঝে নিখিলের বাড়ি ছেড়ে আলাদা থাকতে শুরু করেন নুসরত। তবে প্রকাশ্যে কেউই সম্পর্কের টানাপোড়েন নিয়ে মুখ খোলেননি।

নুস
  • 11/14

তবে নুসরতের প্রেগনেন্সির খবর আসতেই চিত্রটা একেবারে অন্য দিকে ঘুরে গেল। ৭ জুলাই নিখিল সংবাদ মাধ্যমে জানান, নুসরতের বিরুদ্ধে এর মধ্যেই মামলা করেছেন তিনি। যার শুনানি রয়েছে জুলাই মাসে।

নুস
  • 12/14

সন্তানের পিতা যে নিখিল নন সেটাও পরিষ্কার করে দিয়েছেন তিনি। সোশাল মিডিয়ায় যা নিয়ে প্রশ্নের বহর ক্রমশ বড় হয়েছে। কটাক্ষ উড়ে এসেছে নুসরতের দিকে। সকলেই বলছেন আগত সন্তান পিতা যশ।

নুস
  • 13/14

ঘটনার ২ দিনের মধ্যে নুসরত আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দিয়ে সংবাদ মাধ্যমকে জানান, তিনি এবং নিখিল লিভ ইন সম্পর্কে ছিলেন। তুরস্কের বিয়ে ভারতে বৈধ নয়। ফলে বিয়ের কোনও বৈধতা নেই। ফলে ডিভোর্সের কোনও প্রশ্ন ওঠে না।

নুস
  • 14/14

কাজে অনেক দিন আগে বিচ্ছেদ হলেও কথায় এবং আনুষ্ঠানিক ভাবে বিচ্ছেদের কথা স্বীকার করে নিলেন নুসরত এবং নিখিল। একে অপরের বিরুদ্ধে উড়ে এল অনেক অভিযোগও। নুসরত এ বার যশরত হন কিনা তা দেখার অপেক্ষায় ফ্যানরা।