scorecardresearch
 

রাকেশ সিং-এর বাড়িতে পুলিশ, ছেলের সঙ্গে বচসা, আটক ৩,

কলকাতা পুলিশের গুন্ডা দমন শাখার চিটিং সেকশান ছাড়াও আলিপুর, ওয়াটগঞ্জ সহ বন্দর বিভাগের প্রায় সমস্ত থানার আধিকারিকরা পৌঁছান রাকেশ সিং-এর (Rakesh Singh) বাড়িতে। কিন্তু বিজেপি নেতা রাকেশ সিং-এর ছেলে পুলিশকে বাড়িতে ঢুকতে বাধা দেন বলে অভিযোগ। যার জেরে শুরু হয় বচসা। পরে রাকেশের বাড়ির রাধুনি সহ ৩ জনকে আটক করেন পুলিশ কর্তারা।   

রাকেশ সিং-এর বাড়িতে পুলিশ রাকেশ সিং-এর বাড়িতে পুলিশ
হাইলাইটস
  • রাকেশ সিং-এর বাড়িতে বিশাল পুলিশ বাহিনী
  • রাধুনি সহ আটক ৩
  • বিজেপি নেতা কোথায়?

বিজেপি (BJP) নেতা রাকেশ সিং-এর (Rakesh Singh) বাড়ির রাধুনি সহ মোট ৩ জনকে আটক করলো পুলিশ। ইতিমধ্যেই শুরু হয়েছে জিজ্ঞাসাবাদ। পামেলা গোস্বামী (Pamela Goswami) মাদক মামলায় মঙ্গলবারই রাকেশকে হাজিরা দিতে বলে কলকাতা পুলিশ। কিন্তু দিল্লিতে পূর্ব নির্ধারিত কাজ থাকায় ২৬ তারিখের পর তিনি তদন্তকারীদের সঙ্গে দেখা করবেন বলে জানান রাকেশ। নোটিশের জবাবে ইমেল করে এই কথা জানান তিনি। একই সঙ্গে পুলিশের সামনে দুটি শর্তও রাখেন এই বিজেপি নেতা। জিজ্ঞাসাবাদের সময় তাঁর কেন্দ্রীয় নিরাপত্তা রক্ষী, ব্যক্তিগত নিরাপত্তা রক্ষী এবং দুই আইনজীবীকে উপস্থিত থাকার অনুমতি দিতে হবে বলে জানান তিনি। 

এখানেই শেষ নয় মঙ্গলবার কলকাতা হাইকোর্টেরও দ্বারস্থ হন রাকেশ সিং। আদালতে পুলিশের নোটিশে স্থগিতাদেশ চাওয়ার পাশাপাশি তাঁর বিরুদ্ধে যাতে পড়া পদক্ষেপ না নেওয়া হয় সেই আবেদনও জানান এই বিজেপি নেতা। কিন্তু সেই আবেদন খারিজ করে দেয় কলকাতা হাইকোর্ট। এরপর থেকেই আর খোঁজ মিলছে না রাকেশের। এদিকে ইতিমধ্যেই রাকেশের বাড়িতে হাজির হয় বিশাল পুলিশ বাহিনী। কলকাতা পুলিশের গুন্ডা দমন শাখার চিটিং সেকশান ছাড়াও আলিপুর, ওয়াটগঞ্জ সহ বন্দর বিভাগের প্রায় সমস্ত থানার আধিকারিকরা পৌঁছান রাকেশের বাড়িতে। কিন্তু বিজেপি নেতা রাকেশ সিং-এর ছেলে পুলিশকে বাড়িতে ঢুকতে বাধা দেন বলে অভিযোগ। যার জেরে শুরু হয় বচসা। পরে রাকেশের বাড়ির রাধুনি সহ ৩ জনকে আটক করেন পুলিশ কর্তারা।   

প্রসঙ্গত দিন কয়েক আগেই মাদক সহ বিজেপি নেত্রী পামেলা গোস্বামী, তার নিরাপত্তা রক্ষী ও আরও একজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। সেই ঘটনায় প্রকাশ্যে রাকেশ সিং-এর বিরুদ্ধে অভিযোগ আনেন পামেলা গোস্বামী। বিজেপি নেত্রীর অভিযোগ, তাঁকে চক্রান্ত করে ফাঁসানো হয়েছে। আর রাকেশ সিং এই কাজ করিয়েছেন বলেও দাবি করেন পামেলা। রাকেশকে গ্রেফতারেও দাবি তোলেন তিনি। এরপরেই পামেলার বক্তব্যের প্রেক্ষিতে রকেশকে তলব করে লালবাজার।