scorecardresearch
 

Acidity Home Remedies : গ্যাস-অম্বলে নাজেহাল? নিমেষে আরাম দেবে ঘরোয়া এই ৫ উপায়

গ্যাস-অম্বল হলে সামনে যত ভাল খাবারই থাক না কেন, খাবার ইচ্ছে থাকে না। কারণ অ্যাসিডিটি হলে গলা-বুক জ্বালা করতে থাকে, পেটে ব্যথা হয়। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দেখা যায় ভোরবেলা অ্যাসিডিটি হচ্ছে। তবে কয়েকটি ঘরোয়া উপায়ে অ্যাসিডিটি থেকে দ্রুত আরাম পাওয়া যায়।

প্রতীকী ছবি প্রতীকী ছবি
হাইলাইটস
  • অনেকেই গ্যাস-অম্বলের সমস্যায় ভোগেন
  • চলে যাওয়ার খাওয়ার রুচি
  • রইল ৫ ঘরোয়া সমাধান

বদহজম অনেক ক্ষেত্রেই অ্যাসিডিটির কারণ হয়ে দাঁড়ায়। আর গ্যাস-অম্বল হলে সামনে যত ভাল খাবারই থাক না কেন, খাবার ইচ্ছে থাকে না। কারণ অ্যাসিডিটি হলে গলা-বুক জ্বালা করতে থাকে, পেটে ব্যথা হয়। বেশিরভাগ ক্ষেত্রে দেখা যায় ভোরবেলা অ্যাসিডিটি হচ্ছে। তবে কয়েকটি ঘরোয়া উপায়ে অ্যাসিডিটি থেকে দ্রুত আরাম পাওয়া যায়।

তুলসী পাতা
এটি অ্যাসিডিটি দূর করতে অন্যতম সহজ এবং কার্যকরী উপায়। এর জন্য আপনাকে ৩ থেকে ৪টি তুলসী পাতা এক কাপ জলে ফুটিয়ে নিতে হবে। তারপর জ্বলটি ঠান্ডা হলে পান করুন। অ্যাসিডিটি দূর হতে পারে।

তুলসী
তুলসী

ঘোল
দইয়ের ঘোল অ্যাসিডিটি কমাতে বিশেষ কার্যকরী। কারণ ঘোলে রয়েছে ল্যাকটিক অ্যাসিড যা অ্যাসিডিটি কাটাতে অত্যন্ত কার্যকর। এতে আধ চা চামচ গোলমরিচ ও ধনেপাতা মিশিয়ে পান করতে পারেন।

গুড়
কাড়া বানাতে গুড় ব্যবহার করা হয়। তবে এটি অ্যাসিডিটি দূর করতেও কার্যকরী প্রমাণিত হয়েছে। ব্রেকফাস্টের পর খান একটুকরো গুড়। দেখুন কত দ্রুত দূর হয়ে যায় অ্যাসিডিটি।

গুড়
গুড়

জিরা
অ্যাসিডিটি দূর করতে জিরাও খুব উপকারী। এক গ্লাস জলে কিছুটা জিরা দিয়ে বেশ কিছুক্ষণ ফোটান। এরপর ছেঁকে নিন। ঠান্ডা হলে পান করুন।

আদা
সকালে অ্যাসিডিটি শুরু হলে আদা খান। এটি সরাসরি বা আদার জল করে খাওয়া যেতে পারে। আদার জল তৈরি করতে এক কাপ জলে আদা দিয়ে গরম করতে দিন। সামান্য গরম হওয়ার পর সেই জল খান। স্বাদের জন্য তাতে মধুও দিতে পারেন। 

(Disclaimer : প্রতিবেদনটি সাধারণ তথ্যের ভিত্তিতে লেখা, প্রয়োজনে বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।)

আরও পড়ুনসোশ্যাল মিডিয়ায় অশ্লীল ছবি, প্রেমিকের ওপর ভয়ঙ্কর বদলা প্রেমিকার