scorecardresearch
 

Winter Health Tips for Elderly People: শীতে সুস্থ থাকতে হলে প্রবীণদের মানতেই হবে এই ৫ বিষয়

Winter Health Tips for Elderly People: গত কয়েক দিন বেশ ঠান্ডা পড়েছে। মাঝে কলকাতা-সহ বেশ কয়েকটি জেলায় হয়েছে বৃষ্টি। বাকিরা জমিয়ে ঠান্ডা উপভোগ করলেও প্রবীণ মানুষদের ক্ষেত্রে সেটা না-ও হতে পারে।

শীতের সময় প্রবীণদের মেনে চলতে হবে কিছু নিয়ম (প্রতীকী ছবি) শীতের সময় প্রবীণদের মেনে চলতে হবে কিছু নিয়ম (প্রতীকী ছবি)
হাইলাইটস
  • বাকিরা জমিয়ে ঠান্ডা উপভোগ করলেও প্রবীণ মানুষদের ক্ষেত্রে সেটা না-ও হতে পারে
  • বরং এই সময়ে তাঁদের শরীর-স্বাস্থ্যের দিক বিশেষ নজর দেওয়ার দরকার রয়েছে
  • এমনই জানাচ্ছিলেন মেডিকা হাসপাতালের বিশিষ্ট কার্ডিওলজিস্ট অরিন্দম পাণ্ডে

Winter Health Tips for Elderly People: গত কয়েক দিন বেশ ঠান্ডা পড়েছে। মাঝে কলকাতা-সহ বেশ কয়েকটি জেলায় হয়েছে বৃষ্টি। জাঁকিয়ে শীত না পড়লেও আকাশে-বাতাসে বেশ ঠান্ডা রয়েছে। 

বাকিরা জমিয়ে ঠান্ডা উপভোগ করলেও প্রবীণ মানুষদের ক্ষেত্রে সেটা না-ও হতে পারে। বরং এই সময়ে তাঁদের শরীর-স্বাস্থ্যের দিক বিশেষ নজর দেওয়ার দরকার রয়েছে। কারণ আবাহওয়ার বদল হলে শরীর খারাপ হওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যায় না। এমনই জানাচ্ছিলেন মেডিকা হাসপাতালের বিশিষ্ট কার্ডিওলজিস্ট অরিন্দম পাণ্ডে। 

আরও পড়ুন: বিশ্বভারতীর অনুমতি না পেলে বিকল্প জায়গায় পৌষমেলা করতে চায় বোলপুর পুরসভা

ঠান্ডার সময় প্রবীণ মানুষজনের শারীরিক অবস্থা ঠিকঠাক থাকে, সে জন্য বেশ কয়েকটি পরামর্শ দিয়েছেন তিনি। এগুলো মেনে চললে সুস্থ থাকা যাবে। জেনে নেওয়া যাক তিনি কী বলেছেন।

আরও পড়ুন: হবু স্ত্রীর স্তন-কোমরের মাপ জানতে চেয়ে বিজ্ঞাপন, বিতর্ক তুঙ্গে 

শীতের শুরুতেই ব্লাড প্রেশার মাপা
ডাঃ অরিন্দম পাণ্ডে জানান, সময় বদলের সঙ্গে সঙ্গে ব্লাড প্রেশার বা রক্তচাপ পাল্টে যায়। যেমন শীতকালে তা বেড়ে যায় আর গরমকালে তা কম থাকে।

আরও পড়ুন: নোয়াখালি থেকে অসম, বিজয়ার বিষাদ লুকিয়ে বাংলার লোকগানে 

কারণ কম তাপমাত্রা কম থাকলে রক্তনালী সঙ্কুচিত হয়ে যায়। ফলে ব্লাড প্রেশারের ওপর প্রভাব পড়ে। তাই শীতকালে প্রবীণ মানুষদের রক্তচাপ মাপা দরকার এবং চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে চলতে হবে। 

বদলে ফেলুন মর্নিং ওয়াকের সময়
সুস্থ-সবল থাকতে অনেক মানুষ মর্নিং ওয়াকে যান। তবে আগেই বলা হয়েছে, এই সময় রক্তচাপ বেড়ে যায়। তাই খুব সকালে ওয়াাকে যাওয়ার দরকার নেই। 

আরও পড়ুন: মালামাল করে দেওয়া পেনি স্টক, এক বছরে ১ লক্ষ টাকা হয়েছে ৩০ গুণ! 

যাঁরা নিয়মিত মর্নিং ওয়াকে যান, তাঁরা সময়ে বদল আনুন। যখন ঠান্ডাটা একটি কম থাকে। এ জন্য ঠিক সময় হল সকাল ৭-৮টা এবং বিকেলে ৩-৪টে। সেইসঙ্গে নিয়মিত ব্য়ায়াম করা যেতে পারে। 

আরও পড়ুন: করোনার ধাক্কা! বেসরকারি ছেড়ে দেশে বাড়ল সরকারি স্কুলে ভর্তির হার

গায়ে রোদ লাগান
দেখা গিয়েছে, অনেক মানুষ গায়ে রোদ লাগাতে পছন্দ করেন। তবে গরম জামাকাপড় পরে রোদে না গেলেই ভাল। বরং হালকা জামাকাপড় পরে রোদ লাগানো বেশি ভাল। এর ফলে শরীর সরাসরি ভিটামিন ডি নিতে পারে। স্নানের আগে বা পরে- যে খোনও সময়ে রোদ উপভোগ করা যেতে পারে। 

আরও পড়ুন: ঠান্ডা কড়া নেড়েছে, দার্জিলিং জমজমাট! মজেছেন পর্যটকেরা

বেশি করে মরশুমি সবজি-ফল খেতে হবে
প্রবীণ মানুষেরা হজমের সমস্যায় ভোগেন। এ ব্য়াপারে ডাঃ অরিন্দম পাণ্ডের পরামর্শ, তাঁরা শারীরিক পরিশ্রম হয়, এমন কাজের সঙ্গে যুক্ত থাকেন না। আর উৎসবের সময় তাঁরা খাওয়াদাওয়ার নিয়মও ভাঙেন।

শরীর ভাল রাখতে হলে বেশি করে খাওয়া যাবে না, বিশেষ করে রাতে। হেলদি ডায়েট মানতে হবে। বেশি করে মরশুমি ফল, সবজি খেতে হবে। এগুলির মধ্যে পুষ্টি, প্রোটিন এবং ভিটামিন থাকে। যা ইমিউনিটি বাড়িয়ে তুলতে সাহায্য করে। 

ঠান্ডা না না থাকলেও গরম জামাকাপড় পরতে হবে
শীতকালে আমাদের শরীরের তুলনায় চারপাশ যথেষ্ট ঠান্ডা হয়ে থাকে। ফলে শরীর থেকে তাপ বেরিয়ে যায়। এবং আমাদের ঠান্ডা লাগে। দিনে ঠান্ডা কম থাকে। তাই মানুষজন গরম জামাকাপড় খুলে ফেলেন। 

তবে প্রবীণ মানুষদের মনে রাখতে হবে বয়সের ওপর শরীরের তাপমাত্রার ফারাক থাকে। তাই তাঁদের সবসময় গরম জামাকাপড় পরে থাকা দরকার। এর ফলে তাঁরা হাইপোথারমিয়া থেকে রক্ষা পাবেন। এটি হলে শরীরের তাপমাত্রা এক ঝটকায় অনেক কমে যায়। ফলে সমস্য়া তৈরি হয়। জানালেন তিনি।