scorecardresearch
 

Shani Mahadasha: এই কাজগুলি না করলে বাঁচবেন শনির বক্র দৃষ্টি থেকে

শনি দেবকে তিন জগতের বিচার ও শাস্তির দেবতা হিসেবে বিবেচনা করা হয়। জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, শনিদেবের মহাদশা, সাড়ে সাতি বা ঢাইয়া অবশ্যই প্রত্যেক ব্যক্তির জীবনে একবার প্রভাব ফেলে। শনির বক্র দৃষ্টির কারণে মানুষকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। এ জন্য দেবতারা এবং অসুররাও শনি বক্র দৃষ্টিকে ভয় পান। শনি দেব ব্যক্তিকে তার কর্ম অনুযায়ী ফল দেন। অতএব, তাঁর বাঁকা দৃষ্টি এড়ানোর জন্য এই কাজগুলি করা উচিত নয়।

এই কাজগুলি না করলে বাঁচবেন শনির বক্র দৃষ্টি থেকে এই কাজগুলি না করলে বাঁচবেন শনির বক্র দৃষ্টি থেকে
হাইলাইটস
  • শনির বক্র দৃষ্টির কারণে মানুষকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়।
  • এ জন্য দেবতারা এবং অসুররাও শনি বক্র দৃষ্টিকে ভয় পান।
  • তাঁর বাঁকা দৃষ্টি এড়ানোর জন্য এই কাজগুলি করা উচিত নয়।

উপর শনি দশা চলছিল। পরের মাসে, ১১ অক্টোবর ২০২১ সোমবার সকাল ৮টা থেকে, শনি মার্গী হচ্ছে। একই সঙ্গে শুরু হবে শনির মহাদশাও (Shani Mahadasha)। শনিকে ন্যায়ের দেবতা মনে করা হয়। ভালো কর্ম করলে শুভ ও খারাপ কর্মের জন্য অশুভ প্রভাব দিয়ে থাকেন শনি দেব। শনি কোষ্ঠিতে উচ্চ স্থিতিতে থাকলে ব্যক্তি শুভ ফল লাভ করে।

শনির সাড়ে সাতি (Shani Sade Sati)  বা মহাদশা (Mahadasha) প্রভাবের কারণে অনেক দুর্দশা ভোগ করতে হয়। শনিদেব ভক্তদের ভাল কাজের শুভ ফল দেন। তবে যারা খারাপ কাজ করেন তাঁদের শনিদেবের ক্রোধের সম্মুখীন হতে হয়। শনির মহাদশার প্রথম পর্যায়, কোনও ব্যক্তি অর্থনৈতিক সমস্যার সম্মুখীন হন। দ্বিতীয় পর্যায় তাঁর পরিবার এবং তৃতীয় পর্যায় স্বাস্থ্যের উপর খারাপ প্রভাব পড়ে। কোনও ব্যক্তির জীবনে এই তিনটি পর্যায় প্রায় আড়াই বছর ধরে চলে। যার মধ্যে দ্বিতীয় পর্যায়টি সবচেয়ে ভয়াবহ। এই আড়াই বছরের সময়কালকে জ্যোতিষে ঢাইয়া বলা হয়ে থাকে।

শনি দেবকে তিন জগতের বিচার ও শাস্তির দেবতা হিসেবে বিবেচনা করা হয়। জ্যোতিষশাস্ত্র মতে, শনিদেবের মহাদশা, সাড়ে সাতি বা ঢাইয়া অবশ্যই প্রত্যেক ব্যক্তির জীবনে একবার প্রভাব ফেলে। শনির বক্র দৃষ্টির কারণে মানুষকে অনেক সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। এ জন্য দেবতারা এবং অসুররাও শনি বক্র দৃষ্টিকে ভয় পান। শনি দেব ব্যক্তিকে তার কর্ম অনুযায়ী ফল দেন। অতএব, তাঁর বাঁকা দৃষ্টি এড়ানোর জন্য এই কাজগুলি করা উচিত নয়। আসুন জেনে নেই এই কাজগুলো সম্পর্কে।


শনিদেবের বক্রদৃষ্টি এড়াতে এই কাজটি করবেন না:

 

  • কথিত আছে যে শনিদেব সবসময় দুর্বল ও দরিদ্রদের সাহায্য করেন। অতএব, দুর্বল, অসহায় এবং দরিদ্র ব্যক্তিকে কখনও ভুল করেও হয়রানি করবেন না। অন্যথায় আপনি শনিদেবের বক্র দৃষ্টির কোপে পড়বেন।

 

  • যে সব মানুষ পশু-পাখি, বিশেষ করে কাক, মহিষ, হাতি, কুকুর ইত্যাদির উপর অত্যাচার করে, তাদের শনিদেবের বাঁকা দৃষ্টি থেকে রক্ষা করা যায় না।

 

  • যারা মদ পান করেন বা অন্য কোন নেশা গ্রহণ করেন তাদের শনির মহাদশায় বড় ধরনের সমস্যা ও কষ্টের মধ্যে পড়তে হতে পারে।

 

  • যে ব্যক্তি মহিলাদের সম্মান করে না, তাদের প্রতি খারাপ অনুভূতি থাকে, পরস্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক তৈরি করে বা করার চেষ্টা করে, এই ধরনের ব্যক্তিরা শনিদেবের প্রচণ্ড শাস্তির মুখে পড়তে হয়।

 

  • যারা জুয়া বা সাট্টা খেলে, তাদের উপর শনিদেবের দৃষ্টি বক্রই থাকে। এই ধরনের লোকদের শনিদেবের মহাদশার মুখোমুখি হতে হবে। অতএব এই ধরনের কর্ম করা উচিত নয়।

 

  • যে সব মানুষ তাদের পিতামাতা, পূর্বপুরুষ, গুরু এবং দেবতা বা উপাসনালয়কে সম্মান করে না, তাদের শনিদেবের রোষের সম্মুখীন হতে হয়। এই কারণে এই ধরনের জিনিস নিয়ে পরিহার করা উচিত নয়।

 

  • যারা অনৈতিক কাজ করে যেমন মিথ্যা বলা, মিথ্যা সাক্ষ্য দেওয়া বা অনৈতিক আচরণ, অপ্রয়োজনীয় ঝগড়া মারামারি করা, ইত্যাদি তারা শনিদেবের দণ্ড ভোগ করে।