scorecardresearch
 

Viral : বিরাটকে Birthday Wish করে বিড়ম্বনায় ভাজ্জি, হাসিতে ফেটে পড়ল টুইটার

বিরাটকে Birthday Wish করে এমন বিড়ম্বনায় পড়বেন ভাজ্জি, তা বুঝতেও পারেননি। তাঁর টুইটের যে অনুবাদ করল একটি হিন্দি সংবাদপত্র, তা দেখেই হাসিতে ফেটে পড়ল টুইটার। শেয়ার করেছেন খোদ হরভজন।

ভাজ্জির বার্থডো উইশে বিরাটের বারোটা ভাজ্জির বার্থডো উইশে বিরাটের বারোটা
হাইলাইটস
  • ভাজ্জির বার্থডে উইশে হাসির ফোয়ারা
  • ইংরেজি ভয়াবহ অনুবাদ করলো সংবাদপত্র
  • টুইটে তুমুল মজা, উমর আকমলকে নিয়ে

৫ নভেম্বর বিরাট কোহলির জন্মদিন। সেদিনে দেশ-বিদেশের বন্ধু, আত্মীয় সহ অনেকেই বিরাটকে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন। শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন বিরাটের এক সময়ের সতীর্থ তথা প্রাক্তন ভারতীয় তারকা অফস্পিনার হরভজন সিং। টুইটারে তার শুভেচ্ছা জানানোর পর একটি হিন্দি পত্রিকা তাঁর টুইটের যা তরজমা করে, তা দেখে হাসিতে ফেটে পড়ে গোটা টুইটার।

হরভজন নিজে টুইটারে নিজের অরিজিনাল পোস্ট আর সঙ্গে যে নিউজ পেপার তাঁর মন্তব্যের অনুবাদ করেছেন, দুটোই কোলাজ করে শেয়ার করেন। এরপর থেকেই তা ভাইরাল হয়ে যায়। ইংরেজি টুইটের যা অনুবাদ করেছে হিন্দি কাগজটি তা দেখে হাসি চাপতে পারেনি কেউই। মুহূর্তে টুইটটি ভাইরাল হয়ে যায়। শেয়ার, টুইট, রিটুইটের বন্যা বয়ে যায়।

সংবাদপত্রের ইংরেজি জ্ঞান দেখে চোখা চোখা মন্তব্য ভেসে আসে। কেউ লেখেন, পাকিস্তান লেবেলের ইংরেজি। আবার কেউ উমর আকমলের একটি পুরনো ভুল ইংরেজিতে করা টুইট শেয়ার করে দেন। কেউ বলেন, এমন সংবাদপত্রকে আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি দেওয়া উচিত। এমনকী প্রাক্তন জাতীয় তারকা যুবরাজ সিংও ভাজ্জির টুইটে অট্টহাসির ইমোজি পোস্ট করে দেন। এমনকী কেউ কেউ দেশের শিক্ষা ব্যবস্থা নিয়েও প্রশ্ন তুলে দেন।

আসলে সেই টুইটে কি লেখা ছিল? হরভজন, বিরাট কোহলিকে টুইটে শুভেচ্ছা জানিয়ে উত্তর ভারতের একটি চলতি বাক্য লেখেন। বাক্য়টি হল বিরাট কোহলি মাই ব্রাদার ফ্রম অ্যানাদার মাদার। তারপর লেখেন খুশ রহে। কিন্তু টুইটটি পড়ে হিন্দি দৈনিকে লেখা হয় বিরাট কোহলিকে মা বললেন হরভজন। যা দেখে নিজের হাস্যরস সংযত রাখতে পারেননি খোদ ভাজ্জিপা। তিনি বৃহস্পতিবার টুইট করে দেন।