scorecardresearch
 

Kolkata-Siliguri Bus Stand Moving: শিলিগুড়িতে ঠিকানা বদল কলকাতা-শিলিগুড়ি বাসস্ট্যান্ডের, কোথায়-কীভাবে বাস ধরবেন?

Kolkata-Siliguri Bus Stand Moving To New Place: শিলিগুড়িতে সরতে চলেছে প্রাইভেট লাক্সারি বাসের স্ট্যান্ড। শিলিগুড়ি জংশন স্টেশন লাগোয়া তেনজিং নোরগে বাস টার্মিনাসে কিছুদিন পর থেকে আর বাস নামবে না। তাহলে কোথায় হচ্ছে বাস স্ট্যান্ড, জেনে রাখুন...

শিলিগুড়িতে সরছে কলকাতা-শিলিগুড়ি বাসস্ট্যান্ড, কোথায় কীভাবে যাবেন জেনে নিন শিলিগুড়িতে সরছে কলকাতা-শিলিগুড়ি বাসস্ট্যান্ড, কোথায় কীভাবে যাবেন জেনে নিন
হাইলাইটস
  • শিলিগুড়িতে সরছে কলকাতা-শিলিগুড়ি বাসস্ট্যান্ড
  • কোথায় কীভাবে যাবেন জেনে নিন
  • এসজেডিএ-র তরফে যানজট কমাতে উদ্যোগ

Kolkata-Siliguri Bus Stand Moving To New Place: কলকাতা থেকে শিলিগুড়িতে বাসে এলে আর হয়তো শিলিগুড়ি জংশন এলাকার তেনজিং নোরগে বাস টার্মিনাসে নামতে পারবেন না। এবার থেকে অন্য ঠিকানায় নামতে হবে। ফলে নতুন করে শিলিগুড়ির মানচিত্র জানাটা জরুরি। কোথা দিয়ে কীভাবে শহরে ঢুকবেন তা জেনে রাখা উচিত। দীর্ঘদিন ধরেই বাসস্ট্যান্ড সরানোর পরিকল্পনা থাকলেও এখন খুব দ্রুত কাজ শুরু করতে চাইছে শিলিগুড়ি-জলপাইগুড়ি ডেভলপমেন্ট অথরিটি (SJDA)। এ নিয়ে সম্প্রতি বৈঠকে বসেছিলেন কর্তৃপক্ষের আধিকারিকরা। ছিলেন শিলিগুড়ি পুরনিগমের প্রতিনিধিরাও।

আরও পড়ুনঃ বিস্ময় 'টেগর রক', সিটংয়ের অহলদাঁড়ায় শায়িত রবীন্দ্রনাথ, কীভাবে যাবেন?

শহরের যানজট সমস্যা কমাতে উদ্যোগ

শহরের যানজট সমস্যা রুখতে বাসস্ট্যান্ডের স্থান পরিবর্তনের পরিকল্পনা নিয়ে এসজেডিএ ও পুরনিগম কর্তৃপক্ষ। গত ১০ বছরে যানজট ও ট্রাফিক সমস্যা বেড়েই চলেছে। শিলিগুড়িতে প্রতিটি কাজের দিনে প্রায় ১৫ লক্ষ লোক যাতায়াত করে। উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন শহরের পাশাপাশি প্রতিবেশি রাজ্য  সিকিম, বিহার;লাগোয়া নেপাল, বাংলাদেশ, ভুটান থেকে লোক কাজে আসেন। তাছাড়া প্রতিদিন হাজার হাজার পর্যটকদের আনাগোণাতো রয়েইছে। ফলে, অনিয়ন্ত্রিত যানজট শহরে সমস্যা তৈরি করছে।

পরিকল্পনা রূপায়নে এক টেবিলে এসজেডিএ-পুরনিগম

সম্প্রতি শিলিগুড়ির বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ নিয়ে বৈঠকে বসেছিলেন এসজেডিএ চেয়ারম্যান সৌরভ চক্রবর্তী ও শিলিগুড়ি পুরনিগমের মেয়র গৌতম দেব। এ বিষয়ে এসজেডিএ চেয়ারম্যান সৌরভ চক্রবর্তী জানান,শহরে মূলত বড় লাক্সারি বাসগুলি দাঁড়িয়ে থেকে যানজট তৈরি করে। তাই এই বাসগুলি শহরের বাইরে নিয়ে যাওয়া হবে। শহর সংলগ্ন জলপাইগুড়ি জেলার নৌকাঘাট এলাকায় একটি জমি রয়েছে বলে তিনি জানান। যেখানে বহুদিন আগেই একটি বাসস্ট্যান্ড করার পরিকল্পনা করা হয়েছিল। সেখানেই নতুন বাসস্ট্যান্ড তৈরি করার পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে। বৈঠকের শেষে মেয়র জানিয়েছেন, শিলিগুড়ির উন্নয়নের জন্য যে সমস্ত বড়ো প্রকল্প আছে সে সমস্ত কিছু এসজেডিএ করে। কীভাবে উন্নয়নের কাজ করা যাবে তা নিয়ে আলোচনা হয়েছে। ফলে এসজেডিএ ও পুরনিগমের মধ্যে ভাল সমন্বয় থাকা খুব প্রয়োজন,শিলিগুড়ি শহরের সব থেকে বড় সমস্যা হয়ে দাড়িয়েছে যানজট সমস্যা। তাই সেটি লাঘব করতে পদক্ষেপ করা হচ্ছে।

ক্ষোভ প্রাইভেট বাসমালিকদের

যদিও প্রাইভেট লাক্সারি বাসগুলি সরানোর পরিকল্পনা মেনে নিচ্ছেন না তৃণমূলেরই বাস মালিকদের সংগঠন। শিলিগুড়ি বাস ওনার্স অ্যান্ড বুকিং এজেন্ট ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশেনের তরফে দাবি করা হয়েছে যে সরকারি বাস ও প্রাইভেট বাস এক জায়গায় রয়েছে গোটা দেশেই। এতে যাত্রীদেরও সুবিধা বাসগুলি চালাতেও সুবিধা। তাই তাঁরাও বিষয়টি নিয়ে আধিকারিকভাবে চিঠি দেবেন বিষয়টি পুনর্বিবেচনার জন্য। সংগঠনের সভাপতি সন্তোষ সাহা জানিয়েছেন, তাঁদের দাবি চিঠিতে পূরণ না হলে শেষমেষ তাঁরা আন্দোলনে নামতে বাধ্য হবেন।

আরও পড়ুনঃ আপনার ভাল সময়ের সংকেত পাঠাচ্ছেন শনিদেব, উপেক্ষা করছেন না তো!

কোন রুটে প্রস্তাবিত বাসস্ট্যান্ড যেতে হবে?

এদিকে যদি কাওয়াখালিতে বাসস্ট্যান্ড হয়, তাহলে কলকাতা থেকে সরাসরি সেখানে নামবেন যাত্রীরা। সেখান থেকে ঢিলছোঁড়া দূরত্বে উত্তরববঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল। একটু এগিয়ে চতুর্থ মহানন্দা সেতু ধরে শিলিগুড়ির দিকে এলে এশিয়ান হাইওয়ে দিয়ে ডান দিকে সোজা জলপাইগুড়ি যাওয়া সুবিধা হবে। শিলিগুড়ির যানজট এড়িয়ে জলপাইগুড়ির রাস্তায় গজলডোবা সহ ডুয়ার্স পৌঁছনো যাবে। অন্যদিকে বাঁ দিকে ঢুকলে বর্ধমান রোড হয়ে শিলিগুড়ি শহরে ঢুকে পড়তে পারবেন। ওই রাস্তা সোজা চলে গিয়েছে মহানন্দা সেতু ধরে হিলকার্ট রোডে পুরনো তেনজিং নোরগে বাসস্ট্যন্ডে।