scorecardresearch
 

বাজেটে প্রাধান্য পাবে করোনা? মাথায় হাত দেশের ধনকুবেরদের

করোনার প্রভাব এবার বাজেটেও দেখা যাবে বলেই মত ওয়াকিবহাল মহলের। কেন্দ্রীয় সরকার পয়লা ফেব্রুয়ারি বাজেট উপস্থাপন করা হবে। এই বাজেটে ধনকুবের এবং শিল্পপতিরা কিছুটা হতাশার মুখোমুখি হতে পারেন।

করোনার ভাইরাস ভ্যাকসিন রোলআউটের ব্যয় হবে প্রায় ৬০ হাজার থেকে ৬৫ হাজার কোটি টাকা। করোনার ভাইরাস ভ্যাকসিন রোলআউটের ব্যয় হবে প্রায় ৬০ হাজার থেকে ৬৫ হাজার কোটি টাকা।
হাইলাইটস
  • করোনার প্রভাব এবার বাজেটেও দেখা যাবে
  • ধনী ব্যক্তিদের উপর কোভিড -১৯ সারচার্জ আরোপের জন্য কেন্দ্রীয় সরকার প্রস্তুতি নিয়েছে
  • করোনার ভাইরাস ভ্যাকসিন রোলআউটের ব্যয় হবে প্রায় ৬০ হাজার থেকে ৬৫ হাজার কোটি টাকা

করোনার জেরে তীব্র ধাক্কা খেয়েছে দেশের অর্থনীতি। ভাইরাস হানায় ২০২০-২১ অর্থবর্ষের প্রথম প্রান্তিকে জিডিপি সংকোচন হয়েছে প্রায় ২৩.৯ শতাংশ। সেই অর্থনীতিকে আবারও ফেরাতে সরকার সব ধরণের প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। করোনার প্রভাব এবার বাজেটেও দেখা যাবে বলেই মত ওয়াকিবহাল মহলের। কেন্দ্রীয় সরকার পয়লা ফেব্রুয়ারি বাজেট উপস্থাপন করা হবে। এই বাজেটে ধনকুবের এবং শিল্পপতিরা কিছুটা হতাশার মুখোমুখি হতে পারেন।   

কর, রাজস্ব হ্রাস, বিনিয়োগ এবং করোনার ভ্যাকসিনের মতো পরিস্থিতিতে রাজস্ব বৃদ্ধি করতে ধনী ব্যক্তিদের উপর কোভিড -১৯ সারচার্জ আরোপের জন্য কেন্দ্রীয় সরকার প্রস্তুতি নিয়েছে। অর্থনৈতিক মহলের মত, দেশবাসীকে টিকা দেওয়ার জন্য যে ক্ষতিপূরণ হয়েছে সরকার সব বিষয়ে বিকল্প বিবেচনা করছে।

ইকোনমিক টাইমসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কোভিড -১৯ সেস বা সারচার্জ প্রয়োগ করে ধনীদের উপার্জনে রাশ টানা হতে পারে। সূত্র মতে, বাজেটে এর চূড়ান্ত ঘোষণা করা হতে পারে। এর বাইরেও সরকার থেকে আয় বাড়ানোর জন্য অন্যান্য বিকল্প বিবেচনা করছে।

কেন্দ্রীয় সরকার কোভিড -১৯ সেস আরোপের বিষয়ে একটি প্রস্তাব প্রস্তুত করেছে, যা উচ্চ আয়ের গোষ্ঠীর করদাতাদের উপর চাপানো হবে। এ ছাড়াও পরোক্ষ কর বাড়ানোর প্রস্তুতিও চলছে। পেট্রোল ও ডিজেলের উপর অতিরিক্ত শুল্কের সম্ভাবনাও রয়েছে। 

প্রাথমিক অনুমান অনুসারে, করোনার ভাইরাস ভ্যাকসিন রোলআউটের ব্যয় হবে প্রায় ৬০ হাজার থেকে ৬৫ হাজার কোটি টাকা। অগ্রাধিকার দেওয়া হবে স্বাস্থ্য কর্মী ও সামনের সারির করোনা যোদ্ধাদের।