scorecardresearch
 

সুশান্ত সিং রাজপুত মামলায় রিয়ার বিস্ফোরক স্বীকারোক্তি প্রকাশ্যে

সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) গার্লফ্রেন্ড- অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী (Rhea Chakraborty) মাদক সংযোগ মামলার মূল অভিযুক্ত হিসাবে গ্রেপ্তার করে এনসিবি। রিয়ার স্বীকারোক্তি থেকে উঠে এসেছে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

সুশান্ত সিং রাজপুত ও রিয়া চক্রবর্তী সুশান্ত সিং রাজপুত ও রিয়া চক্রবর্তী
হাইলাইটস
  • গত ১৪ জুন বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় তাঁর বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে।
  • সুশান্তের গার্লফ্রেন্ড- অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী মাদক সংযোগ মামলার মূল অভিযুক্ত হিসাবে গ্রেপ্তার করে এনসিবি।
  • রিয়ার স্বীকারোক্তি থেকে উঠে এসেছে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

গত ১৪ জুন বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের (Sushant Singh Rajput) ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় তাঁর বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে। তাঁর এই সন্দেহজনক মৃত্যু মামলায় একই সঙ্গে তদন্তে নিযুক্ত হয়েছিল তিন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। সুশান্তের গার্লফ্রেন্ড- অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী (Rhea Chakraborty) মাদক সংযোগ মামলার মূল অভিযুক্ত হিসাবে গ্রেপ্তার করে এনসিবি। রিয়ার স্বীকারোক্তি থেকে উঠে এসেছে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

এনসিবির দেওয়া চার্জশিট এবং আদালতের অভিযোগ নম্বর ১৬/২০২০ -র ভিত্তিতে এই অভিযোগপত্রের নজর দেওয়া হয়েছে। রিয়া এবং অন্যান্য অভিযুক্তরা এই মামলায় জামিনে রয়েছেন। কেন্দ্রীয় সংস্থার কাছে রিয়ার নিজের হাতে লেখা স্বীকারোক্তি অনেক চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে এনেছে। সুশান্তের জীবন কি বাঁচানো যেত? সুশান্তের পরিবার কি ইচ্ছাকৃতভাবে সুশান্তের সমস্যা উপেক্ষা করেছিল? সুশান্তকে কি মাদকের আসক্তি থেকে ফিরিয়ে আনা যেত? সুশান্তের পরিবারও কি তাঁর মাদকাসক্তির জন্য দায়ী?গত এক বছর ধরে ইত্যাদি নানা প্রশ্ন উঠেছে।

রিয়ার স্বীকারোক্তি  

"আমাকে আমার হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট খুলতে বলা হয়েছিল যা সারা আলি খানের সঙ্গে ছিল। আমি ৪ জুন এটিকে খুলি এবং সারা তা দেখেন। এই সংক্রান্ত কিছু ইঙ্গিত ছিল সেখানে। তিনি আইসক্রিম এবং যে গাঁজা খান সেই সম্পর্কে কথা বলছিলেন। তুমি আমাকে প্যান রিলিফের প্রস্তাব দিয়েছিলে। ৩০ জুলাই ২০১৭- র চ্যাট রেকর্ডটি দেখিয়েছিলে যেখানে সে আসার সিদ্ধান্ত নেয়, ধূমপান এবং ডোজি শব্দ ব্যবহার করে।"

রিয়া লেখান, "ডোজি গাঁজার এক প্রকার। কয়েকটি অনুষ্ঠানে আমি এটি তাঁর সঙ্গে এটা নিয়েছি। সারা আমায় ডোজি সরবরাহ করতেন। তুমি ২০১৭ সালের ৬ জুন, আমায় যে চ্যাটগুলি দেখিয়েছিলে তাতে ভডকা, এবং ডোজির উল্লেখ রয়েছে। তাঁর বাড়িয়ে সে আমায় ভডকা ও গাঁজা সরবরাহ করে। আমি সেদিন তাঁর কাছ থেকে কোনও ভডকা নেইনি। এরপর আমি চকোর সঙ্গে চ্যাটগুলি খুলেছিলাম। চকো শোভিক আমার ভাই।

আরও পড়ুন: ফের রোশনের সঙ্গে ঘর বাঁধবেন শ্রাবন্তী? স্বামীর ইচ্ছেতেই নতুন জল্পনা নায়িকার জীবনে 

"এমন কিছু জিনিস রয়েছে যা ক্লোমাজ, ক্লোমনেজিপান, কুইটা ক্লোনের সঙ্গে সম্পর্কিত এবং আমি উল্লেখ করতে চাই যে উপরে উল্লিখিত জিনিসগুলি ডাঃ নিকিতার প্রেসক্রিপশন। আমি ও শোভিক সব সময় গুগলের মাধ্যমে ক্লোমনেজিপানের পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া সম্পর্কে কথা বলেছি। চিকিৎসকেরা প্রেসক্রিপশন অনুযায়ী সেই ওষুধ চালিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছিলেন। সুশান্তের শরীর ভাল ছিল না এবং তাই শোভিক চিন্তিত ছিল। ডাঃ নিকিতার সঙ্গে কথা বলে আমরা সিদ্ধান্ত নি যে আমাদের গুগল ডাক্তার হওয়া উচিত না। আমি আরও যোগ করতে চাই যে,৮ জুন, ২০২০-সালে সুশান্ত সিং রাজপুত তাঁর দিদি প্রিয়াঙ্কার থেকে একটি মেসেজ পেয়েছিলেন।"

আরও পড়ুন: বিনামূল্যে শিল্পী ও কলাকুশলীর টিকাকরণ শুরু হল টলিপাড়ায় 

রিয়া চক্রবর্তী জানান যে, সেই মেসেজে লিব্রিয়াম ১০ মিলিগ্রাম, নেক্সিটো ইত্যাদি যেগুলি এনডিপিএস-এ ড্রাগ ছিল। সুশান্তের এই ওষুধটি খাওয়া উচিত বলে তাঁকে জানানো হয়। তিনি হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার তরুণকে একটি প্রেসক্রিপশন সরবরাহ করেছিলেন। রিয়া দাবি করেন, মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ ছাড়া এই ওষুধগুলি দেওয়া যায় না এবং এই ওষুধগুলি খেয়ে সেই মুহূর্তেই সুশান্তের মৃত্যুও হতে পারতো। সুশান্তের দিদি মিতু ৮ থেকে ১২ জুন পর্যন্ত তাঁর সঙ্গেই ছিলেন। রিয়া আরও বলেন, "সুশান্তের প্রাপ্ত বয়স্ক ছিলেন। তিনি আমার সম্মতি ছাড়াই গাঁজা খেতেন। এমনকি আমার সঙ্গে দেখা হওয়ার আগেও তিনি এটি খেতেন। আমি তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করার চেষ্টা করেছি, তবে তিনি রাজি হননি, যার প্রমাণ আমার রয়েছে। 

আরও পড়ুন: RAY Trailer: প্রত্যাশার পারদ চড়িয়ে মুক্তি পেল RAY-র ট্রেলার 

রিয়া বিস্ফোরক মন্তব্য করেন, যে সুশান্তের দিদি প্রিয়াঙ্কা এবং শ্যালক সিদ্ধার্থ সুশান্তের সঙ্গে গাঁজা সেবন করতেন এবং তাঁকে যোগারও করে দিতেন। তাঁর কথায়, "এনসিবি-র কর্মকর্তারা আমার সঙ্গে কোনও অন্যায় করেনি, আমি কোনও ভয় ও হুমকি ছাড়াই এই বিবৃতি দিচ্ছি।"