scorecardresearch
 

KMC-এর সব বুথে কী করে সিসিটিভি, কালকের মধ্যেই রিপোর্ট, নির্দেশ কমিশনের

KMC Election: কলকাতা পুরভোট (KMC Vote) নিয়ে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক করল রাজ্য নির্বাচন কমিশন (WB State Election Commission)। সেখানে প্রশাসনকে ৫ দফা নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

কলকাতার সব বুথে সিসিটিভি বসানোর পরিকল্পনা কমিশনের (প্রতীকী ছবি) কলকাতার সব বুথে সিসিটিভি বসানোর পরিকল্পনা কমিশনের (প্রতীকী ছবি)
হাইলাইটস
  • কলকাতা পুরসভার সব ওয়ার্ডের বুথে কী করে সিসিটিভি লাগানো যায়, সে ব্য়াপারে কাল, বুধবারের মধ্যে রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে জানাতে হবে
  • কলকাতা পুরভোট নিয়ে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক করল রাজ্য নির্বাচন কমিশন
  • সেখানে প্রশাসনকে ৫ দফা নির্দেশ দেওয়া হয়েছে

KMC Election: কলকাতা পুরসভার সব ওয়ার্ডের বুথে কী করে সিসিটিভি লাগানো যায়, সে ব্য়াপারে কাল, বুধবারের মধ্যে রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে জানাতে হবে। কলকাতা পুরভোট (KMC Vote) নিয়ে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক করল রাজ্য নির্বাচন কমিশন (WB State Election Commission)। সেখানে প্রশাসনকে ৫ দফা নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

কী কী নির্দেশ

  • প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দলের অভাব-অভিযোগ গুরুত্ব দিয়ে দেখতে হবে, শুনতে হবে। এবং ২৪ ঘন্টার মধ্যে সেই অভাব-অভিযোগের নিরসন করতে হবে।
  • রাজ্য নির্বাচন কমিশনের আইনে যা বলা আছে সেই আইন মোতাবেক কাজ করতে হবে সকলকে।
  • কাল, বুধবার বেলা বারোটার মধ্যে ১৪৪টি ওয়ার্ডের সব বুথে কিভাবে সিসিটিভি লাগানো যাবে, তার পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট জমা দিতে নির্দেশ। এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলাশাসক, কলকাতা পুলিশ কমিশনারকে।
  • রাজ্য নির্বাচন কমিশন সম্পর্কে মানুষের কাছে যাতে ভুল বার্তা না যায় সেদিকে সকলকে নজর রাখতে হবে।
  • রাজ্য নির্বাচন কমিশনের আইন বহির্ভূত কোনও কাজ কেউ করলে তা প্রথমেই আইনানুগ ব্যবস্থা না নিয়ে সমঝোতার মধ্যে দিয়ে সমাধান করার চেষ্টা করতে হবে। 

আরও পড়ুন: চুল দিয়ে যায় ঝোলা! দুনিয়ার সবথেকে মজবুত চুল ২২ বছরের এই মহিলার 

আরও পড়ুন: 'এক ব্য়ক্তি এক পদ নীতি' মানা হল কই! তৃণমূল-তালিকায় ৭ MLA-MP

আরও পড়ুন: BJP-র বাম-দশা! ৪-এর মধ্য়ে ৩ আসনে জামানত খোয়াল পদ্ম

মঙ্গলবার রাজ্য নির্বাচন কমিশন (WB State Election Commission)-এর পক্ষ থেকে জরুরি ভিত্তিতে ভিডিও কনফারেন্সের আয়োজন করা হয়েছিল। সেখানে এমনই বার্তা দিয়েছে রাজ্য নির্বাচন কমিশন (WB State Election Commission)। এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ ২৪ পরগনার জেলাশাসক, কলকাতা পুলিশ কমিশনার, কলকাতা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার, এডিজি আইন-শৃঙ্খলা, সব অবজারভার, সব স্পেশাল অবজারভার, সব রিটার্নিং অফিসার, সব এম আর ও সহ সব আধিকিকেরা।

আরও পড়ুন: হবু স্ত্রীর স্তন-কোমরের মাপ জানতে চেয়ে বিজ্ঞাপন, বিতর্ক তুঙ্গে

তৃণমূলের দাবি
দিন কয়েক আগে রাজ্যের শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস দাবি করেছি, রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে। রাজ্যকে অশান্ত করার জন্য প্রধান বিরোধী দলের সমস্ত চক্রান্ত ব্যর্থ করে অখণ্ড শান্তি রয়েছে।

আরও পড়ুন: নিউ টাউন Coffee House পেল আউটডোর ইউনিট, আড্ডা হবে দিলখোলা

এবং পাহাড় থেকে সমতলে শান্তি রয়েছে। এর ভিত্তিতে খোঁজখবর করেছে কমিশন। পুলিশ-প্রশাসন থেকে রিপোর্ট দেওয়া হয়েছে অনেকটা একই রকম। 

জমা পড়েছে ব্লু প্রিন্ট
পুরভোটে (KMC Vote) কী ধরনের নিরাপত্তা ব্যবস্থার আয়োজন করা হবে, প্রশাসনের তরফে সেই ব্লু প্রিন্ট জমা পড়েছিল নির্বাচন কমিশনের কাছে। তারপরেই বিস্তারিত আলোচনা হবে এই বিষয়ে। 

কিছুদিন আগে কলকাতার যুগ্ম-কমিশনারের সদরের সঙ্গে বৈঠকে বসেন রাজ্য নির্বাচন কমিশনার সৌরভ দাস। তার ভিত্তিতেই এদিন কমিশনের কাছে নিরাপত্তা সংক্রান্ত খুটিনাটি তথ্য সমন্বিত রিপোর্ট জমা দেওয়া হয়েছিল প্রশাসনের তরফে।