scorecardresearch
 

WB CM Mamata Banerjee on KMC Election : '২৪ পর্যন্ত যত ভোট হবে, খেলা হবে,' BJP-কে চ্যালেঞ্জ মমতার

WB CM Mamata Banerjee on KMC Election: তিনি বলেন, বাংলায় বৃষ্টি হলে দুদিনে জল নেমে যায়। বার বার কেন্দ্র চাপ দিয়েছে জলের ওপর কর নেওয়ার জন্য। আমি বলেছি, হবে না। 

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
হাইলাইটস
  • যাঁরা কাজ করেননি, টিকিট দিইনি
  • কলকাতা পুরসভার ভোটের প্রচারে জানালেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
  • এলাকার কাজ দেখার কাজ কাউন্সিলরদের, যে দেখতে পারবেন না, কাউন্সিলর হবেন না

WB CM Mamata Banerjee on KMC Election: অনেকে ভেবছিলেন, আমাদের সংস্কৃতি ধরে রাখতে পারব তো? দুদিন গোয়া সফরে গিয়েছিলাম। আমরা কেন করছি। বাংলার যে কর্বের ব্য়াপার সারা দেশে আমরা প্রচার করে বেরাচ্ছি। বুধবার কলকাতা পুরসভায় তৃণমূল প্রার্থীদের সমর্থনে নির্বাচনী প্রচারে এই কথা জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

এদিন তিনি বিদায়ী কাউন্সিলর, প্রা্থীদের সতর্ক করে দেন। তিনি বলেন, এলাকায় কে ঘরবাড়ি করবে, তুমি নিশ্চয়ই ঠিক করবে না। পুর-পরিষেবা আরও বেশি করে অনলাইনে করার ওপর জোর দিয়েছেন তিনি। নেতা বোঝে কাকে? যারা মানুষের কাজটা বোঝে, মানুষকে ভালবাসে।

আরও পড়ুন: ঘরে চাল-ডাল শেষের মুখে, ভাল নেই রাণু মণ্ডল, দুঃখ ভুলতে গাইলেন 'কাঁচা বাদাম'...

টিকা নিন সবাই
এদিন তিনি (Wb CM Mamata Banerjee) বলেন, বাংলা যে গর্ব করে তাঁর কারণ। আমি এনআরসি নিয়ে কর্মসূচিতে এসেছি। এমপি, এমএলএ-রা সব কাজ করতে পারে না। কলকাতায় যেই আসনে সার্টিফিকেট দিয়ে যান। জলের ওপর কর দিতে হয় না। দিল্লিতে দু বালতি জল নিতে গেলে টাকা দিতে হয়। এখানে বিনা পয়সায় রেশন আছে।

আরও পড়ুন: কার্শিয়াংয়ের কাছেই রূপসী রোহিণী, ঝুপ করে ঘুরে আসুন

তিনি বলেন, আপনার ঘরে রেশন পৌঁছে যাচ্ছে। প্রাথমিক স্বাস্থ্য় কেন্দ্রগুলি স্বাস্থ্য দফতরের সঙ্গে যুক্ত করে কাজ করতে হবে। যাঁরা একটা করে টিকা নিয়েছেন, দয়া করে স্বাস্থ্যকেন্দ্রে যান, টিকা নিয়ে আসুন।

আরও পড়ুন: বক্ষ ঢাকা প্রজাপতি দিয়ে! Kate Sharma বলছেন, 'ক্যাচ মি ইফ ইউ ক্যান'

মানুষ ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন
এদিন তিনি বলেন, বিজেপি এমন ঢাক বাজিয়েছিল, টাক ডুমা ডুম ডুম। বিজেপি আসছে গুড়ুম, গুড়ুম,গুড়ুম। মানুষ ভাবতে শুরু করেছিলেন, ভয় পেয়ে গিয়েছিলেন। কী হবে,? এক থাকতে পারব তো? গণতান্ত্রিক অধিকার, সংস্কৃতির অধিকার থাকবে তো? বাংলা আঝ যা কাজ, অন্য তা কাল করে।

আরও পড়ুন: 'কী দেখাচ্ছেন?' Urfi Javed লেদার প্যান্টস-ব্রা পরে ফের ট্রোলড

তিনি বলেন, ওমিক্রন খুব একটা চিন্তার কিছু না। কোভিড তো সামলেছি। আমি কিছু বললে অনেকে বলেন, উনি ওকে বকেছেন। সংশোধন করার জন্য বলি। এলাকার কাজ দেখার কাজ কাউন্সিলরদের। যে দেখতে পারবেন না, কাউন্সিলর হবেন না।

কাজ না করলে টিকিট নয়
তিনি জানান, যাঁরা কাজ করেননি, টিকিট দিইনি। আমার এলাকায় কে ঘরবাড়ি করবে, তা তোমাকে দেখতে হবে না। আস্তে আস্তে অনলাইনে চলে যেতে হবে।

আরও পড়ুন: মেয়েদের কামনা বাড়ায় কালো আদা, রয়েছে আরও গুণ, জানুন

জল জমে না
তিনি বলেন, বাংলায় বৃষ্টি হলে দুদিনে জল নেমে যায়। বার বার কেন্দ্র চাপ দিয়েছে জলের ওপর কর নেওয়ার জন্য। আমি বলেছি, হবে না। কলকাতায় ৪২ শতাংশ অ্যাক্সিডেন্ট কমেছে। মেয়েদের নিরাপত্তার দিক থেকে দুনিয়ার অন্যতম নিরাপদ শহর। ৬০০ কোটি টাকা খরচ করে টালা ট্যাঙ্ক সংস্কার করা হয়েছে। ২০২৪ সালের মধ্যে সবাই পাইপলাইনের মাধ্যমে পানীয় জল পাবেন।

আরও পড়ুন: 'আপনার ব্রা কোথায়?' Esha Gupta-কে প্রশ্ন নেট-নাগরিকদের

তিনি বলেন, বস্তিবাসীদের নিয়ে আমি গর্ব করি। কোনও কোনও পার্টি আছে, মুখে বলে করে না। আমরা বলার ৩-৪ মাসের মধ্যে করি। ২০২৪ পর্যন্ত যত ভোট হবে, খেলা হবে। শিল্প গড়ে দেখিয়ে দেব, যতই বাধা দাও, আটকাতে পারবে না। হিংসা করে মানুষের ভালবাসার ঢেক আটকানো যাবে না।